চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

মাহমুদউল্লাহকে নিয়ে ছুটছেন ফিফটি পেরোনো মুশফিক

নিশ্চিত আউট জেনে রিভিউ নষ্ট করেননি সাকিব আল হাসান। রেখে গিয়েছিলেন পরের ব্যাটসম্যানদের জন্য। সেই রিভিউ কাজে লাগিয়েও বাঁচতে পারেননি সৌম্য সরকার। তিন ওভারের মধ্যে দ্রুত দুই উইকেট হারায় বাংলাদেশ। ফিফটি করা মুশফিক ও সঙ্গী মাহমুদউল্লাহর ব্যাটে পরে ছুটছে টাইগাররা।

বাংলাদেশ- ২০০/৪ (৪১)

বিজ্ঞাপন

চলতি বিশ্বকাপে পঞ্চম পঞ্চাশ পেরোনো ইনিংস খেলেছেন সাকিব। মুজিব-উর রহমানের করা ৩০তম ওভারের দ্বিতীয় বলটি খানিটা বাঁক খেয়ে আঘাত হানে তার প্যাডে। আউট বুঝতে পেরে আর অপেক্ষা করেননি আসরে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ ৪৭৬ রান করা অররাউন্ডার। হাঁটা দেন সাজঘরের পথে।

বিজ্ঞাপন

ফেরার আগে ৬৯ বলে ৫১ রান করেছেন সাকিব। একই ইনিংস দিয়ে বিশ্বকাপে ১০০০ রানের মাইলফলকও ছুঁয়েছেন টাইগারদের বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। ধৈর্যশীল ইনিংসে এদিন কেবল একটাই চার মারেন বাঁহাতি ব্যাটসম্যান।

সাকিবের পর উইকেটে আসেন সৌম্য। ওপেনিং থেকে নেমে পাঁচে এদিন সুবিধা করতে পারেননি। ১০ বলে ৩ করে মুজিবেরই করা ৩২তম ওভারের শেষ বলে ফিরেছেন। বল আঘাত হানে সৌম্যর প্যাডে। জোরাল আবেদনে আম্পায়ার মাইকেল গফ তুলে দেন আঙুল। পরে রিভিউতে দেখা যায় বলের সামান্য একটু অংশই কেবল আঘাত করতো লেগস্টাম্পে। বলটি পিচ হয়েছিল অফস্টাম্পের অনেক বাইরে। তাতেই সৌম্যর শেষ টেনে দেন আম্পায়াররা।

সৌম্য ফেরার পর মাহমুদউল্লাহকে নিয়ে বাংলাদেশের ইনিংস টানছেন মুশফিক। এরমধ্যে দেখা পেয়েছেন আসরে নিজের তৃতীয় ফিফটি পেরোনো ইনিংসের দেখা। আগের ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে অপরাজিত সেঞ্চুরি করেছেন।

দৌলত জাদরানকে লংঅন দিয়ে মাঠের বাইরে আঁছড়ে ফেলে ৫৬ বলে নিজের ৩৫তম ওয়ানডে ফিফটি পেয়েছেন মুশফিক। একইসঙ্গে অবসান ঘটান ৭৩ বল পর বাংলাদেশের বাউন্ডারি খরারও। মাত্র ২ চারের সঙ্গে একটি ছক্কা ফিফটি পর্যন্ত লিটল মাস্টারের ইনিংসে!

Bellow Post-Green View