চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

মানসিক ক্লান্তি নিয়ে কোহলিকে সমর্থন স্মিথের

টানা ক্রিকেটের মধ্যে এখন যে মানসিক ক্লান্তি নিয়ে কথা হচ্ছে , তা সমর্থন করেছেন স্টিভেন স্মিথ। তার কথায়, ‘এখন যে ঠাসা ক্রীড়াসূচি একটা সমস্যা তৈরি করছে, এ নিয়ে সন্দেহ নেই। এতে যে ক্রিকেটারদের মানসিক ক্লান্তি ক্রমশ বাড়ছে, তা নিয়ে আজকাল সবার মধ্যে সচেতনতা আসছে, সেটা দেখেও ভালো লাগছে।’

সম্প্রতি স্মিথেরই সতীর্থ গ্লেন ম্যাক্সওয়েল মানসিক ক্লান্তির জন্য ক্রিকেট থেকে বিরতি নিয়েছেন। যা সমর্থন করেছিলেন ভারতের অধিনায়ক বিরাট কোহলিও। ক্রিকেটারদের ‘ওয়ার্ক লোড’ নিয়ে এখন সব দেশেরই ক্রিকেট বোর্ড যথেষ্ট চিন্তিত। ক্লান্তির কারণে অনেকেই সেরা দিতে পারছেন না, এমন অভিযোগ বারবার উঠে এসেছে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড ওয়ার্ক লোড নিয়ে ইতিমধ্যেই কাজ শুরু করেছে। বাংলাদেশের বিরুদ্ধে টি-টুয়েন্টি সিরিজে কোহলিকে বিশ্রাম দেয়া হয়েছিল।

স্মিথ বলেন, ‘জোরে বোলারদের ক্ষেত্রে এই সমস্যাটা অনেক বেশি। তাদের শারীরিক পরিশ্রম অনেক বেশি হয় অন্যদের চেয়ে। আমাদের নিজেদেরই উচিত এটা নিয়ে আলোচনা করে সমাধান সূত্র বের করা।’

এদিকে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে বল বিকৃতির অভিযোগে স্মিথের সতীর্থ নিকোলাস পুরান চার ম্যাচ সাসপেন্ড হয়েছেন। তার পাশে দাঁড়িয়ে স্মিথ বলেছেন, ‘নিকোলাসের সঙ্গে অনেক ম্যাচ খেলেছি। সে খুব প্রতিভাবান ক্রিকেটার। তার ভবিষ্যৎ উজ্জ্বল। আশা করছি, এই ভুল থেকে শিক্ষা নেবে নিকোলাস। বাকিরাও এ নিয়ে নিশ্চয়ই সজাগ হবে।’

Bellow Post-Green View