চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

মাওবাদীদের সঙ্গে গোলাগুলিতে ২২ ভারতীয় জওয়ান নিহত

ভারতের ছত্তিশগড়ে মাওবাদীদের সঙ্গে গোলাগুলিতে বিজাপুর-সুকমা সীমান্তে ভারতীয় ২২ জন জওয়ান নিহত হয়েছে। এ ঘটনার পরপরই আসামে নির্বাচনী প্রচার কাটছাঁট করে দিল্লি ফিরছেন ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

বিজাপুরের পুলিশ সুপার কমলচরণ কাশ্যপের বরাতে সংবাসংস্থা এএনআইয়ের সূত্রে হিন্দুস্থান টাইমস এ তথ্য জানিয়েছে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

রবিবার প্রচারের শেষদিন আসামের সারভোগ, জালুকবাড়ি, ভবানীপুরে প্রচার করার কথা ছিল, কিন্তু ভয়াবহ এই মাওবাদী হামলার খবর পেয়েই দিল্লিতে ফিরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন অমিত শাহ। সম্প্রতি ছত্তিশগড়ের বস্তারের জঙ্গলে মাওবাদী বিরুদ্ধে দফায় দফায় অভিযান চালাচ্ছেন জওয়ানরা। কয়েকজন মাওবাদীও নিহত হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

প্রশাসন সূত্রে খবর, দিল্লিতে গিয়ে মাওবাদী হামলার প্রেক্ষিতে করুরি বৈঠকে বসতে পারেন শাহ।

বিজাপুরের পুলিশ সুপার কমললোচন কাশ্যপ জানান, ছত্তিশগড়ের –সুকমায় মাওবাদী হামলায় ২২ জন নিরাপত্তারক্ষী নিহত হয়েছেন। ১৬ জন আহত হয়েছেন বলে খবর পাওয়া গিয়েছে।

ইতিমধ্যে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ কথা বলেছেন ছত্তিশগড়ের মুখ্যমন্ত্রী ভুপেশ বাঘেলের সঙ্গে।সেইসঙ্গে সিআরপিএফের ডিজি কুলদীপ সিংয়ের সঙ্গেও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর কথা হয়েছে ।সিআরপিএফের ডিজিকে ছত্তিশগড়ে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।এর আগে টুইট বার্তায় নিহত জওয়ানদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান অমিত শাহ। ছত্তিশগড়ের মুখ্যমন্ত্রী বাঘেলের সঙ্গে কথা বলার পর অমিত শাহ জানান, কেন্দ্র ও রাজ্য উভয় মিলে মাওবাদী হামলার মোকাবিলা করবে ও জিতবে।

এর আগে গত ২৩ মার্চ নারায়ণপুর জেলায় নিরাপত্তা বাহিনীর একটি বাসে আইইডি হামলা চালায় মাওবাদীরা৷ তাতেও প্রাণ যায় পাঁচ ডিআরজি জওয়ানের৷ এই সুকমা, বস্তারসহ সংলগ্ন এলাকা মাওবাদী অধ্যুষিত বলে পরিচিত।