চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ভ্যাকসিন দিয়ে করোনা সংক্রমণ কমিয়েছে ভারত, চীনেও জীবনযাত্রা প্রায় স্বাভাবিক

ব্যাপক ভ্যাকসিন প্রদানের মাধ্যমে করোনা সংক্রমণ কমিয়ে এনেছে ভারত। একদিনে ৮০ লাখ মানুষকে ভ্যাকসিন দিয়ে রেকর্ড করেছে। একই সাথে ভারতে ৮৮ দিনের মধ্যে সবচেয়ে কম করোনা শনাক্ত হয়েছে, কমেছে মৃত্যুও। প্রথম করোনা ছড়ানো দেশ চীনেও জীবনযাত্রা স্বাভাবিক হতে চলেছে।

করোনা মহামারির দ্বিতীয় ঢেউ ক্রমেই সামলে উঠছে ভারত। দৈনিক সংক্রমণ এবং মৃত্যু দুটোই পাল্লা দিয়ে কমছে। বিনামূল্যে ১৮ বছর বয়সোর্ধ্ব সবাইকে ভ্যাকসিন দেয়ার নীতিগ্রহণের পরপরই একদিনে রেকর্ড সংখ্যক, ৮০ লাখ ভ্যাকসিন দিলো ভারত।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

টিকাদান কর্মসূচির নিয়ন্ত্রণ রাজ্য থেকে নিয়ে নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। এছাড়া ভারতে উৎপাদিত বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের করোনা ভ্যাকসিনের ৭৫ শতাংশ সরাসরি কিনে নেয়ার প্রক্রিয়াও শুরু করেছে দেশটি। সোমবার পর্যন্ত দেশটিতে ২৮ কোটি ৩৬ হাজারের বেশি মানুষকে করোনা ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে।

মহামারি করোনা কাটিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে শুরু করেছে চীন। পার্কগুলোতে সন্তানসহ ঘুরতে আসছেন অনেকে। রাস্তায় আগের মতো দেখা যাচ্ছে যানবাহন। খুলতে শুরু করেছে বিপনীবিতান, রেস্তোরাঁ ও বিনোদনকেন্দ্রগুলো। করোনা সংক্রমণ প্রায় শুন্যে নেমে এসেছে। চীনে একদিনে মাত্র ১৭ জন করোনা শনাক্ত হয়েছে। মৃত্যু একেবারেই নেই। মাত্র তিন দিন আগে ১০০ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন দেয়া শেষ করেছে চীন।

বিশ্বে এখন পর্যন্ত ২৫০ কোটি ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে। যার ৪০ শতাংশই চীনে। তবে দরিদ্র দেশগুলো যথেষ্ট ভ্যাকসিন পাচ্ছে না। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, ১৩১টি দেশে ৯ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে। যা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই কম।