চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

‘ভুল’ খেলোয়াড়দের বেছে নিতেন কোহলি

ব্যক্তি আর ক্রিকেটার বিরাট কোহলির সামর্থ্য নিয়ে প্রশ্ন তোলার মতো সমালোচক খুবই কম মিলবে। জাতীয় দলের হয়েও তার নেতৃত্ব বেশ প্রশংসাযোগ্য। কিন্তু আইপিএলে এলেই সব হিসেব যেন উল্টে যায়। এখানে কোহলি এমন এক দলের নেতৃত্বে, যাদের নামীদামি ক্রিকেটার থাকার পরও আজও শিরোপার স্বাদ পাওয়া হয়নি।

বলা হচ্ছে আইপিএলের রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর কথা। সবসময় বেশ শক্তিশালী দল সাজিয়ে নেতৃত্বে কোহলি থাকার পরও তারা কেনো প্রতিবার মুখ থুবড়ে পড়ে সেটি রীতিমতো গবেষণার বিষয়। এবারও একই পরিস্থিতি হবে। দলটির সাবেক কোচ রে জেনিংন্স যেমন বলছেন, কোহলিকে প্রতিবার ভুল খেলোয়াড় দেয়ার ফল হচ্ছে বেঙ্গালুরুর শিরোপা জিততে না পারা।

বিজ্ঞাপন

ব্যাটিং আর ফিল্ডিংয়ে দুর্দান্ত হলেও বেঙ্গালুরুর শিরোপা জেতা হয় না দুর্বল বোলিং লাইনআপের কারণে, ক্রিকেট ডটকমকে এমন বলেছেন ২০০৯ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত আরসিবির কোচের দায়িত্ব পালন করা জেনিংন্স।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

‘আইপিএলের প্রতি দলে ২৫-৩০জন করে খেলোয়াড় থাকে এবং কোচের দায়িত্ব হচ্ছে এসব খেলোয়াড়ের দেখভাল করা। মাঝে মাঝে মনে হতো দলে কোহলি একা, মাঝে মাঝে সে ভুল খেলোয়াড়কে বেছে নিতো। এজন্য অবশ্য তাকে দোষ দেয়া যায় না। চাইতাম একটা নির্দিষ্ট খেলোয়াড় নির্দিষ্ট সময়ে বল কিংবা ব্যাট করুক, কিন্তু সে ভিন্ন কিছু চাইত।’

‘বিরাটের অবিশ্বাস্য একটা ক্রিকেটীয় মস্তিষ্ক আছে। সে নিজেকে অন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছে। আমরা একসঙ্গে কয়েকটা সমস্যা সমাধান করেছি।’

‘বিরাটের একজন অভিজ্ঞ কাউকে দরকার যে তাকে প্রয়োজনের সময় প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিতে পারবে। এটা ঠিক আমাদের দুজনের কিছু খারাপ সময় গেছে। কিন্তু সে খুব দ্রুত শিখে নেয়। তাকে খেলোয়াড় এরপর অধিনায়ক হিসেবে দেখতে পারাটা দারুণ। তার আচরণ অসাধারণ। তার সেরাটা বের হওয়া এখনো বাকি।’