চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ব্যাংককে আটকে পড়া ৪৮ বাংলাদেশি বিশেষ ফ্লাইটে দেশে ফিরলেন

থাইল্যান্ডের ব্যাংককে আটকে পড়া ৪৮ বাংলাদেশিকে দেশে ফিরিয়ে এনেছে গ্রীন ডেল্টা ইনস্যুরেন্সের সহযোগী প্রতিষ্ঠান জিডি এসিস্ট।

জিডি এসিস্টের উদ্যোগে, বাংলাদেশ দূতাবাসের সহযোগিতায় স্থানীয় একটি বিমানসংস্থার চার্টার ফ্লাইটটি শুক্রবার সন্ধ্যায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে অবতরণ করে বলে জিডি এসিস্টের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তারা জানান, মার্চ মাসের শেষ সপ্তাহে ব্যাংককে এক পিতার লাশ দেশে ফেরত আনতে জিডি এসিস্টের সাহায্য চেয়ে যোগাযোগ করেন এক বাংলাদেশি। মানবিক দিক বিবেচনায়, সাধারণ রোগে মারা যাওয়া বাংলাদেশির লাশ ফেরত আনতে প্রক্রিয়া শুরু করে দেশের সবচেয়ে বড় মেডিক্যাল টুরিজম ব্যবস্থাপনা প্রতিষ্ঠান, জিডি এসিস্ট।

বিজ্ঞাপন

ইতোমধ্যে, আরো কিছু বাংলাদেশি পরিবারের কাছ থেকে আবেদন আসে দেশে ফেরত আসার জন্য। আটকে থাকা এই ৪৮ বাংলাদেশিদের ফেরত আনতে দূতাবাস এবং অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের অনুমতি সাপেক্ষে স্থানীয় একটি বিমান সংস্থার চার্টার ফ্লাইট নিশ্চিত করা হয় জিডি এসিস্টের পক্ষ থেকে।

বিজ্ঞাপন

জিডি এসিস্টের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সৈয়দ মইনুদ্দিন আহমেদ বলেন, বিশ্বব্যাপী এই বিপর্যয়ের সময়ে দেশের মানুষের জন্য কিছু করতে পেরে প্রতিষ্ঠানটির প্রতিটি সদস্য গর্বিত।

তিনি আরো জানান, প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন করতে অনুমোদন পাওয়ার সাথে সাথে, ব্যাংককের একটি নামী হাসপাতালে সকল বাংলাদেশীদের করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে জিডি এসিস্টের পক্ষ থেকে।

দেশে ফিরতে পেরে ইমেইলের মাধ্যমে জিডি এসিস্টের উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন রানা ও তার পরিবার, যারা ব্যাংকক থেকে জিডি এসিস্ট-এর সহায়তায় এই শুক্রবার দেশে ফেরা ৪৮ জন বাংলাদেশিদের মধ্যে অন্যতম।

গ্রীন ডেল্টা ইনস্যুরেন্সের সহযোগী প্রতিষ্ঠান জিডি এসিস্ট বিশ্বব্যাপী পর্যটন খাতে বাংলাদেশিদের স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা নিয়ে কাজ করছে।