চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বুধবারও সড়কে থাকবেন রিকশা চালকরা

রাজধানীর ভিআইপি রাস্তায় আলাদা লেনে রিকশা চালানোর দাবি জানিয়ে রিকশা চালকদের সংগঠনগুলো বলছে, আগামীকাল বুধবার সকাল থেকে আবার সড়ক অবরোধ করা হবে।

অবৈধ রিকশা উচ্ছেদ ও রাজধানীর সড়কে রিকশা চলাচল বন্ধের সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারসহ মঙ্গলবার রাজধানীর প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন করে সাত দফা দাবি জানান রিকশা চালকরা।

বিজ্ঞাপন

রাজধানীর গুরুত্বপূর্ণ তিনটি সড়ক থেকে রিকশা তুলে দেয়ার প্রতিবাদে মঙ্গলবার সকাল থেকেই প্রেসক্লাব, মুগদা স্টেডিয়াম, রামপুরা ব্রিজ, মৌচাক মোড়ে সকাল ১০টা থেকে দাঁড়িয়ে তারা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করেছেন। পরে বিকালে অবরোধ তুলে নেন তারা। গণপরিবহন, প্রাইভেটকার, মোটরসাইকেলসহ সব ধরনের যান চলাচল বেশ কয়েক ঘণ্টা বন্ধ ছিল। চরম ভোগান্তিতে পড়েন সাধারণ মানুষ।

বাংলাদেশ জাতীয় রিকশা চালক সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক নাসির আহমেদ চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, রিকশা চালকদের কর্ম না ঠিক করে উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশন যে রাস্তা থেকে রিকশা তুলে দিয়েছে এর জন্য আমরা মাঠে নেমেছি। রাজধানীতে আমরা ১৫ লাখ রিকশা চালক আছি, আমাদের মাথার উপর ছাঁদ নেই, পায়ের নিচে মাটি নেই। আমাদের রুটি-রুজির অবলম্বন রিকশা চালানো বন্ধ করে দিয়ে আমাদের পেটে লাথি মারা হয়েছে।

সিটি করপোরেশনের উদ্দেশে তিনি বলেন, আমাদের ১টি চালক, ১টি প্লেট দিতে হবে, আমাদের রিকশা প্লেট বিক্রি করতে পারবেন না। রাজধানীতে ৮৬ হাজার রিকশার অনুমতি দিয়েছে সিটি কর্পোরেশন। এসব বৈধ রিকশা রাজধানীর সব সড়কে অবাধে চলাচলের সুযোগ দিতে হবে।

রিকশা চালকদের দাবি বিষয়ে তিনি বলেন, আমাদের মৌলিক অধিকার সহ আমাদের সন্তানের শিক্ষা ও সুচিকিৎসা নিশ্চিত করতে হবে। আমরা কখনো সরকারী বা বেসরকারী হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে পারি না, আমাদের জন্য হাসপাতালে চিকিৎসা ব্যবস্থা করে দিতে হবে।

বিজ্ঞাপন

ট্রাফিক পুলিশ দ্বারা রিকশা চালকের ওপর নির্যাতন বন্ধ করতে হবে জানিয়ে নাসির আহমেদ বলেন: রাজধানীর প্রত্যেক মোড়ে রিকশা পার্কিংয়ের ব্যবস্থা করতে হবে। ভিআইপি রাস্তায় আমরা অবশ্যয় রিকশা চালাব কিন্তু আমাদের জন্য আলাদা লেন তৈরি করতে হবে আমরা সারিবদ্ধভাবে রিকশা চালাতে চাই।

প্রেসক্লাবের সামনে বাংলাদেশ জাতীয় রিকশা চালক সংগঠনের মানববন্ধন

রিকশা চালকদের জাতীয় স্বীকৃতি দিতে হবে জানিয়ে তিনি বলেন: আমাদের কর্মের সময়সীমা নির্ধারণ করতে হবে। বয়স্ক চালকদের পুর্নবাসন ব্যবস্থা করতে হবে।

মূল সড়কে রিকশা চলাচল বন্ধের সিদ্ধান্ত’ প্রত্যাহার না করলে বুধবার সকাল থেকে ফের রাজধানীর বিভিন্ন সড়কে নামার ঘোষণা দিয়েছে রিকশাচালকরা। সোম ও মঙ্গলবারের মতো বুধবারও সকাল ৮টা থেকে ফের সড়ক অবরোধ করবে তারা। যদিও আজকের মতো সড়ক ছেড়ে দিয়েছে যান চলাচলের জন্য।

মঙ্গলবার বিকেলে এ ঘোষণা দেয় রিকশা-মালিক নিবন্ধিত ছয়টি সংগঠনের সমন্বয় পরিষদ।

গত ৩ জুলাই ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) নগর ভবনে ঢাকা ট্রান্সপোর্ট কন্ট্রোল অথরিটির (ডিটিসিএ) এক বৈঠকে রাজধানীর তিনটি রুটে রিকশা চলাচল বন্ধের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। গতকাল রোববার (৭ জুলাই) থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হয়।

প্রাথমিকভাবে গাবতলী থেকে আসাদগেট হয়ে আজিমপুর ও সায়েন্স ল্যাব থেকে শাহবাগ পর্যন্ত রিকশা চলাচল করবে না। এছাড়া কুড়িল বিশ্ব রোড থেকে রামপুরা হয়ে খিলগাঁও-সায়েদাবাদ পর্যন্ত রিকশাসহ অন্যান্য অবৈধ ও অননুমোদিত যানবাহন চলাচল নিষিদ্ধের সিদ্ধান্ত দেয়া হয়।

Bellow Post-Green View