চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বিয়ের জন্য চার দিনের ছুটি পেলেন জুন!

বিয়ে বলে কথা! আয়োজন যতই অনাড়ম্বর হোক, লম্বা ছুটি তো লাগবেই। কিন্তু ‘সাঁঝের বাতি’ ছবির শুটিং থেকে বিয়ের জন্য চারদিন ছুটি পেয়েছেন জুন মালিয়া।

১ ডিসেম্বর দীর্ঘদিনের বন্ধু সৌরভ চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে বিয়ের পিঁড়িতে বসবেন কলকাতার বড় ও ছোট পর্দার তারকা জুন মালিয়া। ২৪ বছরের সম্পর্কে তাদের। বিয়ের পরে হানিমুনে কোথায় যাওয়া হবে জিজ্ঞেস করায় জুন বলেন, ‘সাঁঝের বাতির প্রধান একটি চরিত্রে আছি। আমার চরিত্র মল্লিকা, ছবির গল্পে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তাই আমার প্রায় প্রতিদিনই শুটিং করতে হচ্ছে। বিয়ের জন্য মাত্র চারদিন ছুটি পেয়েছি। বিয়ের পর দুজনেই কাজে ফিরবো।’

বিজ্ঞাপন

বিয়ের পরিকল্পনা সম্পর্কে জানালেন জুন। বলেন, ‘১ ডিসেম্বর আমরা সন্ধ্যায় রেজিস্ট্রি করবো। থাকবে ডিনারের আয়োজন। গানের অনুষ্ঠানও থাকবে। আত্মীয়দের বলে দিয়েছি শুভেচ্ছা এবং ভালোবাসা ছাড়া আর কিছুই পেতে চাই না। ২৭ নভেম্বর মা পরিবারের সবার জন্য দুপুরের খাবারের আয়োজন করেছেন। ২৯ নভেম্বর সৌরভের পরিবার দুপুরের খাবারের আয়োজন করেছে। ছোট করে একটা মেহেদির অনুষ্ঠানও হবে। আর এই সপ্তাহের ছুটির অপেক্ষায় কাছি। কারণ আমার বন্ধুরা আমার জন্য পার্টির আয়োজন করছে।’

বিয়ের সাজ প্রসঙ্গে জুন জানিয়েছেন তিনি সোনালি, গোলাপি এবং কমলার সংমিশ্রণের কাঞ্জিভরম শাড়ি পরবেন। মা এবং দাদির স্বর্ণের গহনা পরবেন তিনি।

জুন বলেন, ‘আমার চাইতে আমার সন্তানরা বেশি খুশি, তারা সৌরভের ভক্ত। সম্পর্ক পরিণত হওয়ার সাথে সাথে সন্তানদের সঙ্গেও সৌরভের ঘনিষ্ঠতা বেড়েছে।’

১৪ বছরের সম্পর্ক সৌরভের সঙ্গে জুন এর। সৌরভ রোমান্টিক কিনা সেই প্রসঙ্গে জুন বলেন, ‘ওর ভারসাম্য আছে। চমকে দেয়ার জন্য অস্বাভাবিক কিছু করবে না, কিন্তু আমাকে বুঝিয়ে দিবে আমি ওর জন্য কত স্পেশাল। সৌরভ একটু লাজুক স্বভাবের। তাই ফিল্মি পার্টি অথবা ফিল্ম প্রিমিয়ারে আমার সঙ্গে কেউ ওকে দেখবে না। আমিও তার অফিশিয়াল পার্টিগুলোতে যাব না। আমাদের ব্যক্তিগত এবং কর্মজীবন আলাদা রাখবো।’

অনেক বছর আগে জুন মালিয়ার প্রথম বিয়ে ভেঙে গেছে। দুই সন্তান শিবাঙ্গী আর শিবেন্দ্র বড় হয়ে গেছে। তাদের একাই বড় করেছেন জুন। সন্তানদের কথা ভেবে এত দিন বিয়ের সিদ্ধান্ত নেননি। কিন্তু এখন সন্তানরাই চাইছে তাদের মা আবার সংসার করুক। শেষমেশ বিয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এই তারকা।

জুন মালিয়া বাংলা চলচ্চিত্রে অভিনয় করছেন প্রায় ২৩ বছর ধরে। তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রের তালিকায় আছে ‘লাঠি’, ‘হঠাৎ বৃষ্টি’, ‘নীল নির্জনে’, ‘পদক্ষেপ’, ‘বাইশে শ্রাবণ’, ‘দ্য বং কানেকশন’।

Bellow Post-Green View