চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বলে-ব্যাটে বাংলাদেশের দিন

ম্যাথুজ ১৯৯, নাঈমের ৬ উইকেট

চট্টগ্রাম থেকে: লাল বলের ক্রিকেটে ১০ ইনিংস পর ফিফটি পেরোনো জুটি আসল ওপেনিংয়ে। তামিম ইকবাল ও মাহমুদুল হাসান জয় অপরাজিত থেকে শেষ করেছেন দ্বিতীয় দিন। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৭৬ রান।

তামিম ৩৯ ও জয় ৩১ রানে অপরাজিত থাকায় বাংলাদেশের ড্রেসিংরুমে স্বস্তির হাওয়া। তার আগে শ্রীলঙ্কাকে চারশর মধ্যে আটকে রাখতে সক্ষম হয় স্বাগতিকরা। নাঈম হাসানের বোলিং নৈপুণ্যে সফরকারীরা গুটিয়ে যায় ৩৯৭ রানে।

Reneta June

আগের দিন চার উইকেটে শ্রীলঙ্কার সংগ্রহ ছিল ২৫৮ রান। ৬ উইকেট হারিয়ে তারা যোগ করেছে আরও ১৩৯ রান।

বিজ্ঞাপন

১ রানের জন্য ডাবল সেঞ্চুরির বীরত্বে নাম লেখাতে পারেননি অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজ। ৩৯৭ বল খেলে ১৯ চার ও এক ছয়ে ১৯৯ রান করেন লঙ্কান অভিজ্ঞ ব্যাটার। নাঈম হাসানের বলে এগিয়ে এসে মারতে গিয়ে শর্ট মিড উইকেটে দাঁড়িয়ে থাকা সাকিবের হাতে সহজ ক্যাচ দেন। চার নম্বরে ব্যাট করতে নেমে আউট হন দলের শেষ ব্যাটার হিসেবে।

১৫ মাস আগে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে শেষের ব্যাটারদের নিয়ে লড়ে চতুর্থ ইনিংসে মহাকাব্যিক ২১০ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাইল মেয়ার্স। ভেন্যুটিতে এক টেস্ট পর আবার সম্ভাবনা জেগেছিল ডাবল সেঞ্চুরির।

ম্যাথুজকে ফিরিয়ে নাঈম পান ষষ্ঠ শিকারের দেখা। মেহেদী হাসান মিরাজ চোটে পড়ায় ১৫ মাস পর দলে সুযোগ পাওয়া চট্টগ্রামের অফস্পিনার ৩০ ওভারে ১০৫ রান খরচায় নেন ৬ উইকেট। আট ম্যাচের ক্যারিয়ারে এটি তার তৃতীয়বার পাঁচ কিংবা তার বেশি উইকেট শিকার।

সাকিব নিয়েছেন ৩ উইকেট। আরেক বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম একটি। বাংলাদেশের তিন স্পিনার মিলেই শ্রীলঙ্কার দশ উইকেট নিয়েছেন। পেসার খালেদ আহমেদ ও শরিফুল ইসলামকে দর্শক বানিয়ে।