চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বলিউড অভিনেত্রীর ৬ মাসের জেল

দীর্ঘদিন ধরে বলিউডের রূপালি পর্দার আড়ালে রয়েছেন ‘সাকি সাকি’ গার্ল খ্যাত কোয়েনা মিত্র। তবে হঠাৎ করেই সংবাদের শিরোনাম হলেন তিনি। যদিও সেটি তার অভিনয়ের জন্য নয় বরং জালিয়াতির মামলায় জড়িয়ে!

হ্যাঁ, চেক জালিয়াতি মামলায় বলিউড অভিনেত্রী কোয়েনা মিত্রকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন মুম্বাইয়ের আন্ধেরির ম্যাজিস্ট্রেট আদালত। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এমনটাই জানিয়েছে।

বিজ্ঞাপন

বলিউড হাঙ্গামায় প্রকাশিত সংবাদে বলা হয়েছে, ২০১৩ সালে কোয়েনা মিত্রের বিরুদ্ধে চেক জালিয়াতির অভিযোগ এনে অর্থ ফেরত চেয়ে মামলা দায়ের করেছিলেন মডেল পুনম শেঠি। সেই মামলার অভিযোগ বলা হয়েছিল, পুনম শেঠির কাছ থেকে ২২ লাখ টাকা ধার নিয়েছিলেন কোয়েনা মিত্র। কিন্তু এই অর্থ ফেরত দেওয়ার সময় ৩ লাখ রুপির একটি চেক বাউন্স হয়। যা পুনমকে ফেরত দেননি কোয়েনা। ফলে কোয়েনার বিরুদ্ধে ২০১৩ সালের ১০ অক্টোবর একটি মামলা দায়ের করেন পুনম। যার শুনানিতে কোয়েনা মিত্রকে ১.৬৪ লাখ রুপি সুদসহ ৪.৬৪ লাখ রুপি এ মামলার বাদি মডেল পুনমকে দেওয়ারও নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

যদিও এমন অভিযোগ অস্বীকার করেছেন কোয়েনা। জানিয়েছেন, এটা তার বিরুদ্ধে মিথ্যে অভিযোগ, মিথ্যে মামলা। শেষ শুনানিতে আদালতে উপস্থিত ছিলেন না কোয়েনার আইনজীবী ফলে আদালত তার কোন বক্তব্য শোনেননি। আর এরপর কোন বিবেচনা ছাড়াই আদালত তার রায় দিয়ে দিয়েছেন বলে এক বক্তব্যে জানিয়েছেন কোয়েনা।

কোয়েনার ভাষ্য, বিষয়টি নিয়ে তিনি উচ্চ আদালতে চ্যালেঞ্জ করবেন। যার প্রক্রিয়া ইতোমধ্যেই শুরু করে দিয়েছেন তার আইনজীবী।

Bellow Post-Green View