চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে ডুফা কিডস অ্যাথলেটিক্সের আয়োজন

নতুন প্রজন্মের কাছে অ্যাথলেটেককে জনপ্রিয় করতে বাংলাদেশ অ্যাথলেটিক্স ফেডারেশনের সহযোগিতায় দিনব্যাপী কিডস অ্যাথলেটিক্সের আয়োজন করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৯৯৫-৯৬ শিক্ষাবর্ষের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের নিবন্ধিত বন্ধু সংগঠন- ঢাকা ইউনিভার্সিটি ফ্রেন্ডস অ্যালায়েন্স (ডুফা)।

শুক্রবার সকাল ১০টায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে এ আয়োজন করা হয়।

বিজ্ঞাপন

কিডস অ্যাথলেটিক্সের উদ্বোধন করেন জাতীয় নদী রক্ষা কমিশনের চেয়ারম্যান এবং বাংলাদেশ অ্যাথলেটিক্স ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুর রকিব মন্টু। এসময় ডুফা সভাপতি ব্যারিস্টার এম শফিকুল ইসলাম এবং সাধারণ সম্পাদক জি এম আখতার হুসেইনসহ ডুফার অন্যান্য নির্বাহী সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

ডুফা সভাপতি ব্যারিস্টার শফিক বলেন, বিশ্বব্যাপী কোভিড মহামারীর কারণে আজ প্রায় একবছর ধরে আমাদের সন্তানরা আজ গৃহবন্দী। অনলাইন পড়াশোনার সুযোগে তাদের মধ্যে মোবাইলে বিভিন্ন ধরনের ভিডিও গেমসের আসক্তি মাত্রাতিরক্ত বেড়ে গেছে। মূলত সেই স্থবিরতা থেকে সবাইকে বাহির করে আনতেই আমাদের এই আয়োজন।

বিজ্ঞাপন

ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুর রকিব মন্টু বলেন, আমাদের দেশের অধিকাংশ অ্যাথলেটিক্সের আর্থিক অবস্থা খুবই শোচনায়। ফিটনেস ধরে রাখতে প্রয়োজনীয় সুষম খাবার তো দূরের কথা ভালোভাবে দৌড়ানোর একজোড়া জুতা কেনার সামর্থ তাদের নেই। তাই সমাজের স্বচ্ছল পরিবার থেকে অ্যাথলেটিক্স খেলোয়াড় সংগ্রহ করতে পারলে এই সেক্টরে সুদিন আসার যথেষ্ট সুযোগ রয়েছে।

ডুফা সাধারণ সম্পাদক জি এম আখতার হুসাইন বলেন, আজকের অনুষ্ঠানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪১টি বিভাগের প্রায় ৫ শতাধিক পরিবারের প্রায় দুই হাজার সদস্য দিনব্যাপী ১০টি অ্যাথলেটিক্স ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেছে। এছাড়া বন্ধুদের মধ্যে প্রীতি ফুটবল ম্যাচের আয়োজন করা হয় যেখানে ‘ডুফা গ্রীন’ জয়লাভ করেছে।

তিনি আরো জানান ভবিষ্যতে ডুফা বিভিন্ন ফেডারেশনের সহযোগিতায় শিশুদের নিয়ে অন্যান্য খেলাধুলার আয়োজন করতে আগ্রহী।

অনুষ্ঠানের সবচেয়ে উল্লেখ্যযোগ্য দিক ছিল ছোট ছোট কোমলমতি শিশুরা আন্তর্জাতিক অ্যাথলেট ট্র্যাকে দৌড়ানোর পাশাপাশি সরাসরি দেশসেরা অ্যাথলেটদের সংষ্পর্ষে সংক্ষিপ্ত প্রশিক্ষণের সুযোগ লাভ করে। এসময় বাংলাদেশের দ্রুততম মানব নৌবাহিনীর এম ইসমাইল এবং দ্রুততম মানবী নৌবাহিনীর শিরিন আক্তারসহ অন্যান্য ব্যাক্তিত্ব উপস্থিত ছিলেন।