চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ফ্রান্সে বিক্ষোভ, সংঘর্ষ

প্রস্তাবিত পুলিশ নিরাপত্তা আইন

ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে বিতর্কিত নিরাপত্তা আইনের খসড়ার বিরুদ্ধে বিক্ষোভরত জনগণের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়েছে ‍পুলিশের।

বিক্ষোভকারীরা সেখানে বেশ কিছু দোকানের জানালা ভেঙে ফেলা এবং গাড়িতে আগুন দেওয়া পর পুলিশ বিক্ষোভকারীদের উপর টিয়ারগ্যাস ছোঁড়ে।

বিজ্ঞাপন

এই খসড়া বিলে অবৈধ কোনো অভিপ্রায় নিয়ে পুলিশের ছবি তোলা নিষিদ্ধ করা হয় তার বিরুদ্ধে শনিবার দেশব্যাপী অন্তত ১০০টি র‌্যালির আয়োজন করা হয়। বিরোধীদের বক্তব্য এতে করে পুলিশের নির্মমতার প্রমাণ করার জন্য গণমাধ্যমের স্বাধীনতা নষ্ট হবে।

কিছুদিন ধরেই এই খসড়া বিল নিয়ে প্রতিবাদ চলছে। তবে সম্প্রতি তিন শ্বেতাঙ্গ পুলিশ কর্মকর্তা বর্ণবিদ্বেষীভাবে একজন কৃষ্ণাঙ্গ সংগীত পরিচালককে হয়রানি ও নির্যাতন করা ভিডিও ফুটেজ প্রকাশিত হওয়ার পরে তা আরো তীব্র হয়।

বিজ্ঞাপন

আইনটি নিয়ে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া দেখে প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ জানান, এই আইনের কিছু অংশ পুনঃলিখন করা হবে।

তবে তাতে আশ্বস্ত নয় বিক্ষোভকারীরা।  পরে শুক্রবার ম্যাক্রোঁ বলেন, কিছু পুলিশ আছে যারা বিধ্বংসী। তাদের শাস্তিও হওয়া উচিত।

আর্টিকেল ২৪ এর ওই প্রস্তাবিত বিলে বলা হয়েছে, ডিউটিরত কোনো পুলিশ কর্মকর্তার শারীরিক ও মানসিক অবস্থাকে ক্ষতিগ্রস্ত করার উদ্দেশ্যে তোলা কোনো ছবি প্রচার করা অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড বলেই বিবেচিত হবে। এমনটা করলে অপরাধী ১ বছরর কারাদণ্ড বা ৪৫ হাজার ইউরো জরিমানার সাজা ভোগ করতে পারেন।

আইনজীবীদের মতে এই আর্টিকেল পুলিশকে নির্যাতন এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আক্রমণ থেকে রক্ষা করবে। কিন্তু সমালোচকদের মতে, গণমাধ্যমের স্বাধীনতা এবং পুলিশের কাজের চিত্রগ্রহণ করার জনগণের অধিকার বাধাগ্রস্ত করা ঠিক হবে না।