চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

খেলাধুলা নিয়ে কথা কাটাকাটি, স্কুল ছাত্রকে হত্যার পরে লাশ মাটির নীচে

ফেনীতে খেলাধুলা নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে আরাফাত হোসেন (১৩) নামে এক ছাত্রকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।  সোমবার সকালে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানায়, এ ঘটনায় ওই ছাত্রকে হত্যা করে মাটিতে লাশপুতে ফেলার অভিযোগ উঠেছে মো. সাব্বির হোসেন(১৫) নামের এক বখাটে ছেলের বিরুদ্ধে। সকালেই অভিযুক্তের মা ও ভাইকে আটক করেছে পুলিশ।

বিজ্ঞাপন

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সোমবার সকাল ১০ টায় শহরেরে পাঠানবাড়ি এলাকার জিবি টাওয়ারের পাশে পরিত্যক্ত খালি জায়গা থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে পুলিশ।

এর আগের দিন রাত সাড়ে ৯টায় কিশোর আরাফাত হোসেন নিখোঁজ হয়।

নিহত আরাফাত হোসেন ফেনী পুলিশ লাইন্স স্কুল এন্ড কলেজে ৭ম শ্রেণীতে ছাত্র। আবুধাবী প্রবাসী জসিম উদ্দিনের ছেলে।

তারা শহরের পাঠান বাড়ি এলাকার একটি ভাড়া বাসায় বেশ কিছুদিন ধরে বসবাস করে আসছিল।

বিজ্ঞাপন

নিহত আরাফাত হোসেনের মামা এরশাদ হোসেন জানান, পাড়ার বখাটে সাব্বিরের সাথে  তার  ভাগিনা  আরাফাত  হোসেনের  খেলাধুলা নিয়ে কথা কাটাকাটি হয়। এ ঘটনার জেরে বখাটে সাব্বির রোববার রাত ৯ টায় আরাফাত জেবি টাওয়ারের পাশের পরিত্যক্ত নির্জন জায়গায় ডেকে নিয়ে যায়।

রাত সাড়ে ১০ টার দিকে সাব্বির ওই স্থান থেকে বেরিয়ে আসার সময় এলাকাবাসী আরাফাতের বিষয়ে জানতে চাইলে সে  দৌঁড়ে পালিয়ে যায়। এরপর থেকেই আরাফাত নিখোঁজ। অনেক খোঁজাখুঁজির পর তাকে না পেয়ে স্বজনরা ফেনী মডেল থানায় অভিযোগ করে।

পরদিন সকালে পরিত্যক্ত নির্জন জায়গায় মাটিতে পুতে রাখা লাশের একটি পা দেখতে পেয়ে এলাকাবাসী পুলিশকে খবর দেয়।

পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করলে আরাফাতের স্বজনরা তার মরদেহ শনাক্ত করে।

ঘটনাস্থল পরিদর্শনে আসা ফেনীর পুলিশ সুপার এস.এম জাহাঙ্গীর আলম সরকার জানান, যাওয়া আসা নিয়ে চলাফেরা করতে গিয়ে কোন দ্বন্দ্ব থাকতে পারে।

একেবারে সামান্য ব্যাপার নিয়ে এ ঘটনা ঘটতে পারে, তার পরেও আমরা তদন্ত করে পরে জানাতে পারবো।

Bellow Post-Green View