চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

প্রেমিকাসহ তদন্তের মুখে রোনালদো

‘নিষিদ্ধ’ অঞ্চলে গিয়ে মধুচন্দ্রিমা

কোভিড-১৯ বিধি অমান্য করে করোনা সংক্রমিত অঞ্চলে গিয়ে প্রেমিকা জর্জিনা রদ্রিগেজের জন্মদিন পালন করে তদন্তের মুখে পড়েছে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। ইতালির পুলিশ জানিয়েছে, পর্তুগিজ মহাতারকার বিরুদ্ধে স্বাক্ষ্য-প্রমাণ হাজির করতে মাঠে নেমে পড়েছেন তারা।

স্পালের বিপক্ষে কোপা ইতালিয়ার ম্যাচে রোনালদোকে বিশ্রাম দিয়েছিল জুভেন্টাস। অবসর সময়ে প্রেমিকা জর্জিনার ২৭তম জন্মদিন পালন করতে মঙ্গল ও বুধবার আলপাইন পর্বতমালা ঘেঁষা ভ্যালে ডি’আসোতা অঞ্চলে যান পাঁচবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী ফরোয়ার্ড।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

সেখানে প্রেমিক রোনালদোর সঙ্গে স্নো-মোবিলে চড়ার একটি ভিডিও ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছিলেন জর্জিনা। সেখানকার একটি রেস্টুরেন্টে প্রেমিকার জন্মদিনও পালন করেন সিআর সেভেন।

বিজ্ঞাপন

করোনা প্রাদুর্ভাব থাকায় পিয়েডমন্ট ও ভ্যালে ডি’আসোতা অঞ্চলগুলো ‘অরেঞ্জ জোন’ হিসেবে ঘোষণা করেছে ইতালিয়ান সরকার। অর্থাৎ, এসব এলাকায় ভ্রমণ করা সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।

ঝামেলা হতে পারে বুঝে দ্রুতই ভিডিওটি সরিয়ে নেন জর্জিনা। তার আগেই ভ্যালে ডি’আসোতা পুলিশের চোখে পড়ে গেছে সেটি। তাদের পক্ষ থেকে সংবাদ মাধ্যমগুলোকে জানানো হয়েছে, তদন্ত শুরু হয়ে গেছে প্রেমিকযুগলের বিরুদ্ধে। অভিযোগ প্রমাণিত হলে জরিমানাসহ অন্য শাস্তির মুখেও পড়তে পারেন দুজনে।

গত অক্টোবরেও করোনাবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ উঠেছিল রোনালদোর বিরুদ্ধে। টেস্টে পজিটিভ হয়েও পর্তুগাল থেকে ইতালি ভ্রমণ করায় জুভেন্টাস তারকার সমালোচনায় সরব হয়েছিলেন ইতালির ক্রীড়ামন্ত্রী ভিনসেঞ্জো স্পাদাফোরা। জবাবে কোনো আইন ভাঙেননি দাবি করে ক্রীড়ামন্ত্রীকে একহাত নিয়েছিলেন রোনালদো।