চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

প্রথমবারের মতো কমলা জার্সিতে বিশ্বকাপ খেলবে ভারত

সঙ্গে করে আনলেও ভারতের অ্যাওয়ে জার্সির রঙ কেমন তা নিয়ে ছিল কিছুটা ধোঁয়াশা। আর সঙ্গে আনলেও সেই জার্সি আদৌ পরা হবে কিনা তা নিয়েও ছিল প্রশ্ন। অবশেষে মিলেছে প্রশ্নের উত্তর। ৩০ জুন বিশ্বকাপের ম্যাচে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথমবারের মতো অ্যাওয়ে জার্সি পরে মাঠে নামবেন বিরাট কোহলিরা!

সেদিন ভারতের জার্সির রঙ থাকবে কমলা। ম্যাচের দুই দলের রঙই নীল হওয়ায় এক দলকে অ্যাওয়ে জার্সি পরতেই হতো। স্বাগতিক হওয়ায় ইংল্যান্ডকে তাই সে ঝামেলায় যেতে হচ্ছে না। ভারতকের ভাগ্যে পড়েছে অ্যাওয়ে জার্সিরে মামলা।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

কমলা হলেও নিজেদের ঐতিহ্য নীল রঙকে ছাড়ছে না ভারত। জার্সির কিছু অংশে থাকবে নীলের ছোঁয়াও।

এই বিশ্বকাপে রাউন্ড-রবিন লিগে হওয়ায় প্রতিটি দলই একে অপরের বিপক্ষে খেলবে। তাই আইসিসি এবার নিয়ম করে দিয়েছিল- মূল জার্সির সঙ্গে প্রত্যেক দলকে আনতে হবে অ্যাওয়ে জার্সি। নিউজিল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের জার্সির রঙ অন্যদের থেকে আলাদা হওয়ায় তাদের বাড়তি জার্সি নিতে হয়নি। বাংলাদেশ, আফগানিস্তান, শ্রীলঙ্কা এবং সাউথ আফ্রিকা সঙ্গে করে নিয়ে অ্যাওয়ে জার্সি আছে। তালিকায় ভারতের নাম থাকলেও এতদিন জানা যায়নি তাদের অ্যাওয়ে জার্সির রঙ।

ইংল্যান্ড বাদে কারা পরবে ‘হোম’ আর কাদের ভাগ্যে পরবে ‘অ্যাওয়ে’ জার্সি সেটা পরিষ্কার করেনি আইসিসি। যেমন বাংলাদেশের বিপক্ষে সাউথ আফ্রিকা ম্যাচেও এ নিয়ে ছিল কিছুটা ধোঁয়াশা। সেদিন ‘হোম’ লিস্টেট হয়েও প্রোটিয়ারা পরেছিল তাদের হলুদ রঙের অ্যাওয়ে জার্সি। আর বাংলাদেশ ‘অতিথি’ হয়েও ঠিকই খেলেছে ঐতিহ্যবাহী লাল-সবুজ জার্সিতে!

Bellow Post-Green View