চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Group

প্রতারণার মারপ্যাঁচে ‘গন্তব্য’: প্রযোজক বললেন ‘আমি নিঃস্ব প্রায়’

বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে ‘গন্তব্য’ নামে একটি সিনেমা নির্মাণ করেছেন তরুণ পরিচালক অরণ্য পলাশ

Nagod
Bkash July

বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে ‘গন্তব্য’ নামে একটি সিনেমা নির্মাণ করেছেন তরুণ পরিচালক অরণ্য পলাশ। এখন পর্যন্ত বিভিন্ন ইস্যুতে বহুবার আলোচনার কেন্দ্রে এসেছে ছবিটি! আরো একবার আলোচনায় সেই ‘গন্তব্য’!

এবার ছবিটি নিয়ে প্রতারণার শিকার হওয়ার অভিযোগ তুললেন এই সিনেমার প্রযোজক এলিনা শাম্মী। বিষয়টি নিয়ে তিনি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন প্রযোজক ও পরিবেশক সমিতিতে।

গত ১৯ জানুয়ারি লিখিত অভিযোগে এলিনা শাম্মী জানিয়েছেন, সিনেম্যাক্স মুভির কর্ণধার মনিরুজ্জামান ‘গন্তব্য’ সিনেমা ৩৮ লাখ টাকা ক্রয়ের আশ্বাস দেন এবং মৌখিকভাবে তাদের সঙ্গে ছবিটি কিনে নেয়ার কথাও বলেন। পরবর্তীতে সিনেমাটি কিনতে কালক্ষেপণ করলে প্রযোজক এলিনা শাম্মী বুঝতে পারেন, এই আশ্বাস ছিল পুরোপুরি মিথ্যে ও বানোয়াট! যারা সিনেমাটি কিনতে আগ্রহী ছিল তারা সবাই সরে গেছে। এখন মনিরুজ্জামান ‘গন্তব্য’ না কিনে নেওয়ায় মুক্তিতে বিশাল অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে বলেও অভিযোগপত্রে উল্লেখ করেন শাম্মী।

এমন প্রতারণার কারণে এলিনা শাম্মী প্রযোজক সমিতির কাছে সুষ্ঠ সমাধান চেয়েছেন।

‘গন্তব্য’ ছবির একটি দৃশ্যে আমান রেজা ও এলিনা শাম্মী…

এদিকে প্রযোজক এলিনা শাম্মীর লিখিত অভিযোগের বিষয়ে কিছুই জানেন না উল্লেখ করে অভিযুক্ত মনিরুজ্জামান চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, মানবিক দিক বিবেচনা করে ‘গন্তব্য’ সিনেমা আমি নিতে চেয়েছিলাম, এটা সত্য। টোটাল প্যাকেজ দিতে চেয়েছিলাম ৩৮ লাখ টাকা! বলেছিলাম সেন্সর কপি বা যদি কোনো পুরস্কার অর্জন হয় সেগুলো সব আমার হবে। সিনেমা দেখার পর শর্ত দিয়েছিলাম কিছু জায়গায় সংশোধন করতে হবে। নইলে মানুষ গ্রহণ করবে না। এরমধ্যে তিনমাস সময় নিয়েও সিনেমার কোথাও সংশোধন করে নাই। পরে আমি সিনেমাটি কেনার সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসি।

প্রযোজক মনিরুজ্জামানের বক্তব্য পুরোপুরি মিথ্যে বলে দাবি করলেন ‘গন্তব্য’ সিনেমার প্রযোজক এলিনা শাম্মী।

এ বিষয়ে চ্যানেল আই অনলাইনের সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, উনি যা বলছেন মিথ্যে। সিনেমায় কিছু সংশোধন করেছি বলেই দেরি হয়েছে। এটাও লিখিত অভিযোগে জানিয়েছি। তার সঙ্গে যা যা কথা হয়েছে সবকিছুর প্রমাণ (রেকর্ড) রেখেছি। প্রযোজক সমিতিতে প্রমাণের বিষয়ে জানিয়েছি। শুধু আমার সঙ্গে নয়, উনি একাধিক জনের সঙ্গে এমন প্রতারণা করেছেন, প্রযোজক ও পরিবেশক সমিতির নাম ভাঙ্গাছেন।

এলিনা শাম্মী বলেন, পুরো সিনেমাটি নির্মাণ করতে গিয়ে ৬৫ লাখ টাকার মতো খরচ হয়েছে। নিজেই বিভিন্নভাবে ম্যানেজ করে ৪৫ লাখ টাকার মতো দিয়েছি। অরণ্য পলাশ লাখ দশেক টাকা ম্যানেজ করেছিল। এরমধ্যে বিভিন্ন টেকনিশিয়ান বাবদ ইন্ডাস্ট্রির মানুষরা ২৫ লাখ টাকার মতো পাবেন। নিজের লাভের কথা ভাবছি না। এখন আমি নিঃস্ব প্রায়!

তিনি আরো বলেন, ঋণের টাকা শোধ করার জন্য এবং মনিরুজ্জামান অতিরিক্ত আগ্রহ দেখিয়েছিলেন সেজন্য ৩৮ লাখেই তাকে দিতে চেয়েছিলাম। কিন্তু এর আগে একবার পরিচালকের মাধ্যমে প্রতারিত হয়েছিলাম, আবার গন্তব্য ক্রয়ের কথা বলে আরেকজনের কাছ থেকে প্রতারিত হলাম। এর সুষ্ঠু সমাধান চাই।

এ ব্যাপারে প্রযোজক ও পরিবেশক সমিতির সভাপতি খোরশেদ আলম খসরু চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, ১৯ জানুয়ারি এলিনা শাম্মী প্রযোজক সমিতিতে লিখিত অভিযোগ করেছেন সহযোগী সদস্য মো. মনিরুজ্জামানের বিরুদ্ধে। দ্রুত বিষয়টি নিয়ে আমরা মিটিংয়ে বসব এবং সুষ্ঠ সমাধানে উপায় বের করার চেষ্টা করবো।

‘গন্তব্য’ সিনেমার বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন চিত্রনায়ক ফেরদৌস, জয়ন্ত চট্টোপাধ্যায়, আইরিন, কাজী রাজু, আফফান মিতুলসহ অনেকে।

BSH
Bellow Post-Green View
Bkash Cash Back