চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

পোশাক কারখানা সংস্কার সন্তোষজনক হলেও ট্রেড ইউনিয়ন শ্লথ

পোশাকখাত নিয়ে ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন, আমেরিকা, আইএলও’র সঙ্গে বাংলাদেশের সাসটেইনেবল কমপ্যাক্টের ৬টি ক্ষেত্রের ৪টিতে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি হয়েছে। পোশাকখাতের উদ্যোক্তা ও বিশ্লেষকরা বলছেন, কারখানা সংস্কার সন্তোষজনক হলেও শ্লথ হয়েছে ট্রেড ইউনিয়ন। তবে গত একবছরের অগ্রগতি উল্লেখ করার মতো মনে করেন তারা।

রানা প্লাজা ধসের পর ২০১৩ সালে ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন, আমেরিকা ও আইএলও’র সঙ্গে গার্মেণ্টস কারখানার অগ্রগতি পর্যালোচনায় সাসটেইনেবল কমপ্যাক্ট করে বাংলাদেশ সরকার। গত বছর বাংলাদেশে দ্বিতীয় ফলোআপ মিটিংয়ে ৬টি ক্ষেত্রে অগ্রগতির উপর জোর দেয়া হয়। বিশ্লেষকরা বলছেন, ৬টি ক্ষেত্রের মধ্যে ৪টিতে অগ্রগতি যথেষ্ট।

কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরে কার্যক্রম বেড়েছে। ১ হাজার কারখানায় সেফটি কমিটি ও ১২০টি কারখানায় বেটার ওয়ার্ক কার্যক্রম চালু হয়েছে। বিজিএমইএ ও বিকেএমইএ’র বেশিরভাগ কারখানা সংস্কার হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

তবে ট্রেড ইউনিয়ন ও জাতীয় উদ্যোগের কারখানা সংস্কারে অগ্রগতি শ্লথ। যদিও ট্রেড ইউনিয়ন নিয়ে অভিযোগ মানতে চান না গার্মেন্টস উদ্যোক্তারা।

সাসটেইনেবল কমপ্যাক্টের তৃতীয় ফলোআপ মিটিং বৃহস্পতিবার ঢাকায় অনুষ্ঠিত হবে।

বিস্তারিত দেখুন ভিডিও প্রতিবেদনে:

বিজ্ঞাপন