চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

পদ্মা নদীতে নৌকাডুবিতে ৪ কৃষক নিখোঁজ

পদ্মা নদীতে উলু ঘাস (কাশফুল) কাটতে গিয়ে নৌকাডুবিতে ৪ কৃষক নিখোঁজ রয়েছেন। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ন’টার দিকে পাবনা- কুষ্টিয়া জেলার সীমান্ত এলাকা পাবনা সদর উপজেলার চরসাদিপুর ইউনিয়নের চর ঘোষপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কাছে পদ্মা নদীতে এ নৌকাডুবির ঘটনা ঘটে। নিখোঁজ ৪ জনের সলিল সমাধির আশঙ্কা করা হচ্ছে।

নিখোঁজরা হলেন-জুয়েল(৩৫), জাকির(৩২), শরিফুল(৩৫) ও জুবায়ের(৩৩)। এদের সবার বাড়ি কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা উপজেলার জামালপুর গ্রামে।

বিজ্ঞাপন

ভেড়ামারা উপজেলার জামালপুর গ্রামের বাসিন্দা এবং ওই নৌকা ডুবি থেকে সাঁতরে পাড়ে উঠে আসা একজন মনসুর আলী জানান, গো-খাদ্য উলুঘাস(কাশবন) কাটার জন্য ওই গ্রামের তিনিসহ ১৩ জন কৃষক পদ্মার চরে যাচ্ছিলেন। তারা সকাল সাড়ে ৯টার দিকে চর ঘোষপুর থেকে একটি নৌকাযোগে পদ্মা পাড়ি দিচ্ছিলেন। মাঝপথে যাওয়ার পর নৌকাটি হঠাৎ ডুবে যায়। মাঝিসহ তারা ৯ জন সাঁতরে তীরে উঠতে পারলেও অপর ৪ জন তীরে উঠতে পারেননি। তাদের ভাগ্যে কি ঘটেছে তারা বলতে পারছেন না।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

পাবনা ফায়ার সার্ভিসের সহকারী পরিচালক সাইফুজ্জামান প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে জানান, নৌকার বহন ক্ষমতার চেয়ে বেশি লোক নৌকায় ওঠায় তা নদীতে উল্টে যায়।

তিনি জানান, ঘটনা জানার পর পরই ফায়ার সার্ভিস পাবনার টিম ঘটনাস্থলে পৌঁছে যায়। তিনি জানান, তারা স্থানীয়দের সহায়তায় উদ্ধার অভিযান শুরু করেছে। তবে দুপুর পৌণে ১টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত নিখোঁজ কাউকে উদ্ধার করা যায়নি। তিনি জানান, নিখোঁজদের সলিল সমাধি ঘটতে পারে।

সহকারী পরিচালক সাইফুজ্জামান আরো জানান, পাবনায় উদ্ধার করার মত কোন ডুবুরি নাই। এজন্য রাজশাহীতে ডুবুরিকে খবর দেয়া হয়েছে। দুপুর ১২টার দিকে রাজশাহী থেকে ডুবুরিদল রওয়ানা দিয়েছেন। ডুবুরিদল এসে পৌঁছানোর পর উদ্ধার অভিযান আবার শুরু হবে।

এদিকে নদী তীরে নিখোঁজদের স্বজন ও উৎসুক জনতা ভীড় করেছেন। নদী পাড় স্বজনদের আহাজারিতে ভারক্রান্ত হয়ে উঠেছে।