চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

পাকিস্তানে এখনও ৩০-৪০ হাজার জঙ্গি রয়েছে: ইমরান খান

পাকিস্তানে এখনও ত্রিশ-চল্লিশ হাজার জঙ্গি রয়েছে বলে জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। এই জঙ্গিরা আফগানিস্তান ও কাশ্মীরের জন্য প্রশিক্ষণ এবং লড়াইয়ের প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের ‘ইনস্টিটিউট অফ পিস’-এর একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

ইমরান খান দাবি করেন: ‘তার দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ সরকারে আসার আগে যে সরকারগুলো ক্ষমতায় ছিল তারা দেশের সক্রিয় জঙ্গি সংগঠনের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেয়ার মতো রাজনৈতিক দৃঢ়তা ও সদিচ্ছা দেখায়নি। এমনকি পাকিস্তান এ বিষয়ে এতদিন সত্যি বলেনি যে, দেশে ৪০টি জঙ্গি সংগঠন ছিল।’

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন: ২০১৪ সালে পাকিস্তানি তালেবানরা ১৫০ জন স্কুলছাত্রকে আর্মি পাবলিক স্কুলে ঢুকে হত্যা করেছিল। সেসময় সব রাজনৈতিক দল জাতীয় কর্মপরিকল্পনা বিষয়ে সাক্ষর করেছিল এবং আমরা সবাই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম যে, আমরা কোনও জঙ্গি দলকে দেশের ভিতরে সক্রিয় থাকতে দেব না।

ইমরান খানের দাবি: তার সরকারই প্রথম এই জঙ্গিগোষ্ঠীগুলোকে নিরস্ত্র করার চেষ্টা করছে। জঙ্গিদের প্রতিষ্ঠান, সেমিনারগুলোর উপরও দখল নেয়া হয়েছে। প্রশাসন ওদের উপর নজর রাখছে।

এনডিটিভি জানায়: ‘‘পাকিস্তানের সরকার গত ১৫ বছরে যুক্তরাষ্ট্রকে সত্য কথা বলেনি, একথা জানিয়ে বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান জানান, তাদের দেশে ৪০টি জঙ্গি সংগঠন সক্রিয় ছিল। তাই পাকিস্তান এমন একটা সময়ের মধ্য দিয়ে গিয়েছিল, যখন এর থেকে বাঁচব কী করে সেকথা ভেবে আমার মতো মানুষেরা উদ্বিগ্ন হতো। পাকিস্তানও তখন নিজেদের অস্তিত্ব বাঁচাতে লড়ছিল।’’

ইমরান খান বলেন: ‘পাকিস্তানের কোনো ভূমিকাই ছিল না ৯/১১-তে। আল কায়দা আফগানিস্তানে ছিল। কোনো তালেবান জঙ্গি পাকিস্তানে ছিল না। কিন্তু তাও আমরা যুক্তরাষ্ট্রের লড়াইয়ে যোগ দিয়েছিলাম।’

বিজ্ঞাপন