চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

পদ্মা সেতু নির্মাণ কাজের মেয়াদ শেষ হবে ২০২২ সালে

পদ্মা সেতু নির্মান প্রকল্পের মেয়াদ ২০২২ সালের ৩০ জুন পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে, ওই সময়ের মধ্যেই সেতুটি যান চলাচলের জন্য তৈরি হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ মুস্তফা কামাল।

বুধবার সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে তিনি এ কথা বলেন।

Reneta June

অর্থমন্ত্রী বলেন, আগামী বছরের জুন মাসে পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শেষ হবে এমনটাই ঠিক করা ছিল। কিন্তু বৈশ্বিক করোনাভাইরাস মহামারি আর এবছরের অতিরিক্ত বন্যায় এ সেতু নির্মাণকাজে বাধা সৃষ্টি করেছে। তাই আগামী জুনে এর কাজ শেষ করা সম্ভব হচ্ছে না। তবে ২০২২ সালের মধ্যেই পদ্মা সেতুর কাজ শেষ হবে।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, সেতু নির্মাণকাজ শেষ হতে সময় বেশি লাগার জন্য পদ্মা বহুমুখী সেতু নির্মাণ প্রকল্পের মূল সেতু ও নদীশাসন কাজ তদারকির জন্য পরামর্শক সংস্থার মেয়াদ আরও ৩৪ মাস বাড়ানোর প্রস্তাব অনুমোদন দেয়া হয়েছে।
এজন্য সরকারের ব্যয় হবে ৩৪৮ কোটি ১ লাখ ৩২ হাজার টাকা।

নতুন করে খরচ বড়ানোর কারণে প্রকল্পের ব্যয় বেড়ে মোট কত হলো জানতে চাইলে অর্থমন্ত্রী বলেন, প্রকল্প ব্যয় যা ছিল তাই থাকবে। প্রকল্প ব্যয়ে এটা অলরেডি ধরা ছিল, সেখান থেকেই অ্যাডজাস্ট করা হবে।

পদ্মা সেতু নির্মাণ কাজ কবে নাগাদ শেষ হবে সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, করোনার মতো কোনো ভাইরাস নিয়ে আমরা চিন্তা করিনি। তাই ২০২১ সালের মধ্যে কাজ শেষ করবো বলে ধরা হয়েছিল। এটা সবারই প্রত্যাশা ছিল। সেভাবেই কাজটা এগুচ্ছিল। আমাদের পরিপূর্ণ ধারণা ছিল যে, ২০২১ সালের মধ্যে এটার কাজ শেষ করে দেশের মানুষের উপকার করতে পারবো।

কিন্তু করোনাভাইরাস সবকিছু উলটপালট করে দিয়েছে। এ কারণে এই প্রকল্পটিও বাধাগ্রস্ত হয়েছে। তাই ২০২২ সাল পর্যন্ত প্রকল্পের মেয়াদ বাড়ানো হয়েছে। আমরা আশা করি এর মধ্যেই এ পদ্না সেতুর কাজ শেষ হবে, জানান অর্থমন্ত্রী।