চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নির্যাতিত ফিলিস্তিনিদের পাশে হলিউড তারকারা

পূর্ব জেরুজালেমে মুসলিম ও ইহুদিদের পবিত্র স্থান আল আকসা নিয়ে ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনিদের মধ্যে কয়েক সপ্তাহ ধরে চলছে উত্তেজনা। ইসরায়েলের দখলদার বাহিনীর নির্মমতার শিকার ফিলিস্তিনের জনগণ। সোমবার ভোরে পবিত্র আল-আকসা মসজিদে ঢুকে তাণ্ডব চালানোর পর সন্ধ্যায় গাজার বেশ কয়েকটি স্থাপনায় বিমান হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল।

নৃশংস হামলায় প্রাণ হারিয়েছেন বহু ফিলিস্তিনি। এই ঘটনায় ইসরায়েলের প্রতি নিন্দা জানিয়েছে নহলিউড তারকারা।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

ফিলিস্তিনি বংশোদ্ভূত মার্কিন মডেল বেলা হাদিদ ও গিগি হাদিদ ইসরায়েলের এমন ঘৃণ্য কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। নিরপরাধ, নিরস্ত্র মানুষগুলোকে হত্যার প্রতিবাদে পুরো বিশ্বকে এক হতে বলেছেন তারা। এছাড়াও ডুয়া লিপা, রিজ আহমেদ, ভায়োলা ডেভিস, মার্ক রাফালো সহ অনেকেই ফিলিস্তিনের পক্ষে কথা বলেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়।

গিগি হাদিদ নিজেকে গর্বিত ফিলিস্তিনি হিসেবে উল্লেখ করে এক ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে বলেন, ‘ফিলিস্তিনকে কখনোই মুছে ফেলা যাবে না।’

বেলা হাদিদ লিখেছেন, ‘আমার পূর্বপুরুষদের কষ্ট হচ্ছে। সেখানে থাকা আমার ফিলিস্তিনি ভাই-বোনদের জন্য কাঁদছি, নিরাপত্তাহীনতা ও ভীষণ ভয়ের মাঝে তাদের সময় কাটছে । এর অবসান হওয়া উচিত। ২০২১ সালে এর কোনো স্থান থাকতে পারে না!’

তিনি মনে করেন, ফিলিস্তিন নিয়ে এখনই আওয়াজ না তুললে ভবিষ্যৎ প্রজন্মের প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হবে সবার।

বিজ্ঞাপন

পশ্চিমতীরের প্রাচীন শহর পূর্ব জেরুজালেমের শেখ জারাহ থেকে সম্প্রতি আট ফিলিস্তিনি পরিবারকে উৎখাত করে সেখানে ইহুদি বসতি গড়ার চেষ্টা করে ইসরায়েলিবাহিনী। এই অবৈধ দখলদারিত্ব রুখতে গিয়ে চলতি সপ্তাহে শেখ জারাহতে প্রতিরোধ গড়ে তোলেন ফিলিস্তিনিরা অধিবাসীরা। ওই বসতি থেকে পরে পুরো ফিলিস্তিন জুড়ে এই আন্দোলন ছড়িয়ে পড়ে। শেখ জারাহর শহরের কথা উল্লেখ করে অস্কারজয়ী অভিনেত্রী ভায়োলা ডেভিস সোশ্যাল মিডিয়ায় লিখেছেন।, ‘আসুন শেখ জারাহতে যা ঘটছে তা নিয়ে কথা বলি।’

ব্রিটিশ গায়িকা ডুয়া লিপা তার ইনস্টাগ্রামে ‘শেখ জারাহতে কী হচ্ছে’ শিরোনামে এক স্টোরিতে লিখে ঘটনার বিষয়ে বর্ণনা করেন।

অভিনেত্রী ও চলচ্চিত্র প্রযোজক লিনা হিডি লিখেছেন, ‘শেখ জারাহ বাঁচান।’

পিঙ্ক ফ্লয়েড এর কিংবদন্তী সংগীত তারকা রজার ওয়াটার্স লিখেছেন, ‘ইসরায়েল একটি বিদ্বেষ সৃষ্টিকারী দেশ।’

টুইটারে মার্ক রাফালো লিখেছেন, ‘১৫০০ ফিলিস্তিনির ওপর হামলা হয়েছে জেরুজালেমে। ২০০ মানুষ আহত হয়েছেন। ৯ জন শিশু মারা গেছে। দক্ষিণ আফ্রিকাকে দেয়া সহায়তায় তারা মুক্তি পেয়েছে। এখন সময় ফিলিস্তিনিদের মুক্ত করার জন্য অর্থ সংগ্রহ করার।’

রিজ আহমেদ লিখেছেন, ‘ফিলিস্তিনিদের স্বাধীন হওয়ার সময় এসেছে।’