চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নির্বাচনী সরঞ্জাম বহনে নির্দেশিত নিরাপত্তা ছিল না

নির্দেশনা থাকা সত্ত্বেও রাঙ্গামাটিতে নির্বাচনী সরঞ্জাম আনা নেওয়ার সময় নির্বাচনের দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তারা সেনাবাহিনীর কোন সদস্যকে সঙ্গে নেননি। এমনটাই জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনের একজন উর্ধ্বতন কর্মকর্তা।

চ্যানেল আই অনলাইনকে তিনি জানান: নির্বাচনের আগে জেলাপর্যায়ে ইসি ও স্থানীয় প্রশাসনের বৈঠক হয়েছিলো। সেই বৈঠকেই নির্দেশনা দেয়া হয়েছিলো, রাঙ্গামাটিতে নির্বাচনী মুভমেন্ট হবে সেনাবাহিনীকে সঙ্গে নিয়ে। কিন্তু যে সময়ে নির্বাচনী কর্মকর্তাদের উপর ব্রাশফায়ারের ঘটনা ঘটে সেই সময়ে তাদের সঙ্গে কোনো সেনাসদস্য ছিলেন না।  র‌্যাব ও ভিডিপি সদস্য থাকলেও সেনাসদস্য ছিলেন না নির্বাচনী কর্মকর্তাদের সঙ্গে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

নির্বাচনের প্রার্থিতা নিয়েও কথা বলেন তিনি। জানান, রাঙ্গামাটির উপজেলা নির্বাচনে বড় রাজনৈতিক কোনো দলগুলোর প্রার্থী ছিলো না। প্রার্থী ছিলো স্থানীয় বিবাদমান দুই গোষ্ঠী। স্বতন্ত্রভাবেই নির্বাচনে দাঁড়িয়েছিলেন দুজন। তবে পরে একজন তার প্রার্থিতা প্রত্যাহার করে নেন।

সোমবার রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়িতে নির্বাচনী দায়িত্ব পালন শেষে ফেরার পথে দুর্বৃত্তদের ব্রাশফায়ারে ৭ জন নিহত হন।

এ ঘটনায় গুলিবিদ্ধ ২৫ জনের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় হেলিকপ্টারে করে ৭ জনকে ঢাকা সিএমএইচে আনা হয়।

Bellow Post-Green View