চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নির্দেশনা মানলে অন্যদেরও এমপিওভুক্ত করা হবে: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সরকারী নীতিমালা এবং নির্দেশনা মেনে চললে যারা এমপিওভুক্ত (মান্থলি পেমেন্ট অর্ডার) হতে পারেননি, তাদেরকেও এমপিওভুক্ত করা হবে।

বুধবার গণভবনে নতুন এমপিওভুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের তালিকা প্রকাশ করে এসব কথা বলেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

শেখ হাসিনা বলেন: ‘যাদের এমপিও করে দিয়েছি তাদের নীতিমালাগুলো আগামীতেও পূরণ করতে হবে। না হলে এমপিওভুক্তি বাতিল করা হবে। এমপিও করে দিলাম, বেতন পাচ্ছি বলে শিক্ষার মান কমে যাবে তা হবে না। এ সুযোগ অব্যাহত রাখতে আপনাদের ঠিকমতো কাজ করতে হবে।’

বিজ্ঞাপন

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এমপিওভুক্ত যারা তাদের টাকা সরাসরি প্রতিষ্ঠানে চলে যেতো, সেসময় এমপিওভুক্ত শিক্ষকরা ঠিকমতো বেতন পান না, এ অভিযোগ আসতো খুব। তারপর আমরা যার যার নামে মান্থলি পেমেন্ট অর্ডার করে টাকা পাঠাতে শুরু করলাম। তখন প্রায় ৬০ হাজার ভুয়া শিক্ষক পাই।’

‘‘শিক্ষাকে আমরা অনেক গুরুত্ব দিই। তবে সে শিক্ষাটা যথাযথভাবে হতে হবে। এ লক্ষ্যে নীতিমালা প্রণয়ন করি। আজ ২,৭৩০টি প্রতিষ্ঠান আওতাভুক্ত হয়েছে।

শিক্ষাকে আমরা আধুনিক করছি। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির মাধমে মাল্টিমিডিয়া ক্লাসের ব্যবস্থা করেছি। এখন এমনভাবে ট্রেনিং দিচ্ছি যে ঘরে বসে অনলাইনে কাজ করে আমাদের শিক্ষার্থীরা বিদেশে কাজ করে অর্থ উপার্জন করতে পারছে।’’

তিনি আরও বলেন: পাহাড়, চর, হাওরসহ দুর্গম এলাকায় সেখানকার নীতিমালা ক্ষেত্রবিশেষে কিছুটা শিথিল করে ‍দিয়েছি যাতে করে সেখানকার শিশুর ঠিকমতো লেখাপড়া করতে পারে। এমনকি শিশুদের দুর্গম পথ পাড়ি দিয়ে কষ্ট করে যাতে স্কুলে যেতে না হয় সে লক্ষ্যে সেখানে আবাসিক স্কুল প্রতিষ্ঠার উপর জোর দিয়েছি।

Bellow Post-Green View