চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নাটোরে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে গলা কেটে হত্যা

নাটোরের বড়াইগ্রামে শাহানুর বেগম নামে আট মাসের অন্তঃসত্ত্বা এক গৃহবধূকে তার নিজ ঘরে গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে।

বুধবার দিবাগত রাতে উপজেলার ভবানীপুর জোলাপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। শাহানুর বেগম ওই গ্রামের চা দোকানী মো. রাশেদের স্ত্রী।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

স্থানীয়রা জানান, বুধবার দিবাগত রাতের কোনো এক সময় ওই অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে কে বা কারা হাত-পায়ের রগ ও গলা কেটে হত্যা করে রেখে যায়।

নিহতের পরিবারের সদস্যরা বলছেন, ঘটনার দিন বাড়ির পাশে এলাকার ঐতিহ্যবাহী ‘মাদারের গান’ চলছিল। শাহানুরের দুই সন্তান, শাশুড়িসহ পরিবারের অন্য সদস্যরা সেই গানের অনুষ্ঠানে যান। আর ১ বছরের শিশু সন্তান নিয়ে গৃহবধূ বাড়িতে ছিলেন।

বিজ্ঞাপন

গানের অনুষ্ঠান থেকে রাত সাড়ে ১২টার দিকে বাড়িতে ফিরে নিহতের ৮ বছরের শিশুকন্যা মায়ের রক্তাক্ত মরদেহ দেখে চিৎকার করে। সে সময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যসহ এলাকাবাসী এগিয়ে আসেন এবং পুলিশে খবর দেন।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন বড়াইগ্রাম সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার খায়রুল ইসলাম, বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম ও ওয়ালিয়া পুলিশ ফাঁড়ি ইনচার্জ ইন্সপেক্টর ফারুক হোসেন তালাশ।

বৃহস্পতিবার সকালে সিআইডি প্রাথমিক আলামত সংগ্রহের পর মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নাটোর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

বড়াইগ্রাম সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার খায়রুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা খবর পেয়ে রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি।’

‘‘তবে কে বা কারা এমন ঘটনা ঘটিয়েছে তা এখনো জানা সম্ভব হয়নি, তদন্ত চলছে। মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।’’