চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্টের সঙ্গে দেখা করলো মুক্তিপ্রাপ্ত ৮২ স্কুল ছাত্রী

নাইজেরিয়ায় জঙ্গিগোষ্ঠি বোকো হারামের কাছ থেকে মুক্তিপ্রাপ্ত ৮২ স্কুল ছাত্রী দেশটির প্রেসিডেন্ট মুহাম্মদু বুহারি সঙ্গে দেখা করেছেন। দেশটির প্রেসিডেন্ট অফিস এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। দেশটির রাজধানী আবুজা তাদের মেডিক্যাল পরীক্ষা শেষে সেনাবাহিনীর কড়া নিরাপত্তায় তাদেরকে প্রেসিডেন্টের সঙ্গে দেখা করানো হয়।

শনিবার নাইজেরিয়ায় অপহৃত ২৭৬ জন স্কুলছাত্রীর মধ্যে ৮২ জনকে মুক্তি দেয় জঙ্গিগোষ্ঠি বোকো হারাম। এখনো ১৯৫ জন নিখোঁজ রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এসময় প্রেসিডেন্ট বুহারি মুক্তিপ্রাপ্ত স্কুল ছাত্রীদের উদ্দেশ্য বলেন, ‘আমি তোমাদের বরণ করতে পেরে কতটা আনন্দিত হয়েছি, তা ভাষায় প্রকাশ করতে পারবোনা। আমি তোমাদের মুক্তিতে আনন্দিত হয়েছি। আমি নাইজেরিয়ার সকল নাগরিকের পক্ষে তোমাদের সঙ্গে এই আনন্দ ভাগ করতে চাই ।’

প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র জানান, প্রেসিডেন্ট বুহারি নিরাপত্তা বিভাগ, আর্মি, সুইজারল্যান্ড সরকার, রেডক্রস এবং এনজিও যারা এই মুক্তির জন্য কাজ করেছে তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

বিজ্ঞাপন

২০১৪ সালে নাইজেরিয়ার উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় শহর ছিবক থেকে ওই ২৭৬ জন ছাত্রীকে অপহরণ করেছিল বোকো হারাম। তারা ‘ছিবক বালিকা’ হিসেবে পরিচিত।

মুক্তি পাওয়া ছাত্রীরা বর্তমানে সেনা হেফাজতে রয়েছে। শনিবার মুক্তির পর প্রত্যন্ত এলাকা থেকে তাদের ক্যামেরুন সীমান্তের নিকটবর্তী বাঙ্কি সেনা ক্যাম্পে নিয়ে আসা হয়।

রোববার প্রেসিডেন্ট মুহাম্মাদু বুহারি আবুজা শহরে স্কুলছাত্রীদের গ্রহণ করবেন বলে সরকারি সূত্রের বরাত দিয়েছে বিবিসি জানিয়েছে।

এর আগে ২০১৪ সালে অভিযান চালিয়ে ৫০ জন স্কুলছাত্রীকে মুক্ত করা হয়। এছাড়া গত অক্টোবরে রেডক্রসের সঙ্গে আলোচনার পর বোকো হারাম আরো ২১ জন ছাত্রীকে মুক্তি দেয়।

সরকরি সূত্র জানায়, নাইজেরিয়ার উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় এলাকায় খিলাফত প্রতিষ্ঠার নামে গত ৮ বছরে বোকো হারাম হাজার হাজার মানুষকে অপহরণ করে। এ সময়ের মধ্যে তারা ৩০ হাজার মানুষকে হত্যা করে। ঘরবাড়ি ছাড়তে বাধ্য করা হয় লাখ লাখ মানুষকে।