চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ধ্বংসস্তূপ থেকে আলোর খোঁজে প্রোটিয়ারা

চলতি সফরে ভারতের বিপক্ষে এ পর্যন্ত হওয়া নয়টি ম্যাচের মাত্র তিনটিতে জিততে পেরেছে সাউথ আফ্রিকা। রোববার তিন ম্যাচের টি-টুয়েন্টি সিরিজ শুরু। প্রথম ম্যাচে টসে নামার আগে ওই পরিসংখ্যান নিশ্চয়ই চাপে রাখবে প্রোটিয়াদের।

চোটের কারণে মাঠের বাইরে নিয়মিত অধিনায়ক ফ্যাফ ডু প্লেসিস। ওয়ানডে সিরিজে তরুণ মার্করাম দায়িত্ব পালন করলেও টি-টুয়েন্টির আর্মব্যান্ড জেপি ডুমিনির হাতে। ভারতের ধ্বংসাত্মক মুডের সামনে তাই চিন্তাটা ডুমিনিরই বেশি।

ওয়ানডে সিরিজের হার এখনো বাসা বেঁধে আছে সাউথ আফ্রিকানদের মনে। তাই ডুমিনির স্বীকারোক্তি, ‘ওয়ানডে সিরিজ ছিল জঘন্য। ভারতীয় দল আমাদের পুরোপুরি দমিয়ে রেখেছিল। এটা আমাদের মাথায় রাখতে হবে। আমরা আগামী বিশ্বকাপের প্রস্তুতি থেকেও অনেক দূরে।’

সতীর্থদের উদ্দেশ্যে ডুমিনি বলেছেন, ‘সবাইকে আয়নায় নিজের মুখ দেখতে হবে। সবাইকে ভাবতে হবে, একবছর পর কীভাবে বিশ্বকাপের ১৫ জনের দলে ঢুকবে।’

বিজ্ঞাপন

মূর্তিকারিগর

ওয়ানডের চেয়ে টি-টুয়েন্টিতে সাউথ আফ্রিকা দলের সমস্যা বেশি। দলে একঝাঁক নতুন খেলোয়াড়। তাই আবার অনভিজ্ঞতার শিকার হওয়ার সম্ভাবনা থেকে যাচ্ছে ডুমিনির দলের।

নতুনদের মধ্য আছেন ওয়ানডেতে ভাল করা উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান হেনরিক ক্লাসেন। তবে ওপেনিংয়ে দুই নতুন রেজা হেনড্রিক্স ও জন-জন স্মার্ট এবং মিডলঅর্ডারে ক্রিস্টিয়ান জোঙ্কারের উপর চাপ থাকবে। দলে অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান বলতে এবি ডি’ভিলিয়ার্স, ডেভিড মিলার ও ডুমিনি নিজে।

ওয়ানডে বিপর্যয়ের পর এখন নতুনদের আঁকড়ে বাঁচার চেষ্টা স্বাগতিকদের। সেটা কি পারবে ধ্বংসস্তূপ থেকে নতুন দলের খোঁজে থাকা প্রোটিয়ারা?

বিজ্ঞাপন