চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যৌন হয়রানি প্রতিরোধের আহ্বান এমজেএফের

সম্প্রতি দেশের বিভিন্ন স্থানে আবাসিক ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কিছু শিক্ষার্থীর উপর প্রতিষ্ঠানের শীর্ষ কর্তাদের যৌন নিপীড়নের ঘটনায় মানুষের জন্য ফাউন্ডেশন (এমজেএফ) গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে।

একই সঙ্গে অনতিবিলম্বে এসকল ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত দাবি করে আইনি প্রক্রিয়ায় দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেওয়ার আহবান জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

বিজ্ঞাপন

রোববার এক বিবৃতিতে এমজেএফের নির্বাহী পরিচালক শাহীন আনাম বলেন, সম্প্রতি এক আবাসিক ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এক ছাত্রকে যৌন নিপীড়নের পর গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে। অন্যদিকে প্রতিদিনই আবাসিক ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছাত্রীদের একাংশের উপর যৌন নিপীড়নের সংবাদ গণমাধ্যমে প্রকাশিত হচ্ছে, যা সত্যি লজ্জার।

বিজ্ঞাপন

‘‘যৌন নিপীড়নের সাথে জড়িত আবাসিক ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শীর্ষকর্তাদের গ্রেপ্তারের ব্যাপারে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সাম্প্রতিক তৎপরতা অবশ্যই প্রশংসার দাবি রাখে।

তবে ধর্মীয় নীতি-নৈতিকতার শিক্ষাপ্রদান এবং তার কার্যকর অনুশীলনের পরিবর্তে আবাসিক ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এহেন গর্হিত যৌন অপরাধের সাথে প্রতিষ্ঠান প্রধানের সম্পৃক্ততার মাত্রা বৃদ্ধি দেশ ও সমাজের জন্য এক চরম অশনিসংকেত। জবাবদিহিহীন এ সব ঘটনার দায় শিক্ষা মন্ত্রণালয় তথা মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড কোনোভাবেই এড়াতে পারে না।’’

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যৌন হয়রানী প্রতিরোধে আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী আবাসিক ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানেও যৌন নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি গঠনের আহবান জানায় এমজেএফ।

একইসাথে আবাসিক ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে অতীতের যৌন হয়রানীর রেকর্ড খতিয়ে দেখার পাশাপাশি শিক্ষকদের অনৈতিক কার্যক্রমকে কঠোর নজরদারি আওতায় আনার সুপারিশ করেছে এমজেএফ।

Bellow Post-Green View