চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

দায়িত্ব নিয়ে ডিএমপি কমিশনার বললেন, ‘প্রয়োজনে ওসিগিরি করবো’

ঢাকা মহানগর পুলিশের অধীনস্থ কোনো থানায় যদি জনগণ পর্যাপ্ত সেবা ও ভালো আচরণ না পায়, তাহলে সিনিয়র অফিসারদের থানায় বসাবেন বলে জানিয়েছেন ডিএমপি’র নতুন কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম।

তিনি বলেন: প্রয়োজনে আমি নিজে থানায় বসে ওসিগিরি করবো। এলাকার লোকদের কথা বলবো।

বিজ্ঞাপন

রোববার ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন ডিএমপির নতুন কমিশনার।

তিনি বলেন: থানায় সেবা নিতে যাওয়া কাউকে যেন কোনো ধরনের হয়রানি না করা হয়, সে বিষয়ে লক্ষ্য রাখতে হবে।

বিজ্ঞাপন

ডিএমপি কমিশনার বলেন: আমি দায়িত্ব নেয়ার পরেই ঢাকার সব থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ও উপ-কমিশনারদের (ডিসি) সাথে বসেছিলাম। তাদের প্রয়োজনীয় ও কঠোর মনিটরিংয়ের নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। সাধারণ মানুষ যাতে পুলিশভীতি থেকে বের হতে পারে সেই ব্যবস্থা নিতে হবে।

তিনি বলেন: থানায় যেন অসহায় বা অপরাধের শিকার হয়ে কোনো মানুষ হয়রানি ছাড়া মামলা ও জিডি করতে পারে, থানা থেকে বের হলে যেন তার মধ্যে এই বোধ থাকে যে পুলিশ তার সহযোগিতা করবে তা নিশ্চিত করতে হবে।

তিনি বলেন: সাধারণ মানুষ যাতে পুলিশের দ্বারা হয়রানি, চাঁদাবাজির শিকার, পুলিশি সেবার বিপরীতে যাতে আর্থিক লেনদেন না হয় সেদিকে নজর রাখবো। কারও বিরুদ্ধে যদি কোনো অভিযোগ থাকে তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ডিএমপিতে যে ৫০টি থানা আছে সেখানকার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা পর্যায়ক্রমে ডিএমপির বিভিন্ন থানাতেই দায়িত্বে থাকে, তাদের কেন দেশের অন্যান্য থানায় বদলি করা হয় না? এমন প্রশ্নের জবাবে ডিএমপি কমিশনার বলেন: ডিএমপিতে কাজ করার আলাদা অভিজ্ঞতা ও কৌশল আছে। যা অন্যত্র নেই। যদি ডিএমপি’র কোনো ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগ না থাকে তাহলে এ বিষয়ে আইনগত কোনো বাধা নেই।

Bellow Post-Green View