চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

দর্শকহীন আইপিএলে ভার্চুয়াল জুয়াড়িদের ভিড়, আকসুর হাই অ্যালার্ট

আইপিএলে অংশগ্রহণকারী এক ক্রিকেটার অভিযোগ জানিয়েছেন যে, তাকে জুয়াড়িদের পক্ষ থেকে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। অভিযোগ আমলে নিয়ে হাই অ্যালার্ট জারি করেছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের দুর্নীতি দমন ইউনিট (আকসু)।

দর্শকহীনভাবে আরব আমিরাতে বসেছে ১৩তম আইপিএলের আসর। জৈবনিরাপত্তা বলয়ের মাঝে থাকায় মাঠ আর হোটেলের বাইরে কোথাও যাওয়ার সুযোগ নেই ক্রিকেটারদের। সঙ্গে মাঠে দর্শক না থাকায় অতীতের আসরগুলোর চেয়ে এবার বেশ নিশ্চিন্তেই ছিলেন আকসুর সদস্যরা।

বিজ্ঞাপন

দর্শক নেই, তাই বলে কিন্তু ফিক্সিং নিয়েও বসে নেই জুয়াড়িরা। এবার তাদের আনাগোনা অনলাইনে। পরিবারের-ভক্তদের কাছ থেকে দূরে থাকা ক্রিকেটাররা ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রামের মাধ্যমে যোগাযোগ রাখছেন।

বিজ্ঞাপন

এই ফাঁকে ভক্ত সেজে একজন ক্রিকেটারকে ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন ৮ সদস্য বিশিষ্ট দুর্নীতি দমন ইউনিটের প্রধান ও পাঞ্জাব পুলিশের সাবেক ডিজিপি অজিত সিং, ‘আমরা তাকে (জুয়ারী) শনাক্ত করতে পেরেছি। তবে কিছুদিন সময় লাগবে।’

বিসিসিআইয়ের একজন জৈষ্ঠ্য কর্মকর্তা বার্তা সংস্থা পিটিআইকে জানিয়েছেন, ভারতীয় কিংবা বিদেশি, সব ক্রিকেটারকে এবার দুর্নীতি বিষয়ে সচেতন করতে একাধিক ক্লাসের ব্যবস্থা করেছেন তারা। আর অনলাইনে প্রতি ক্রিকেটারের সঙ্গে ব্যক্তিগতভাবে যোগাযোগও রাখছে আকসু।

দুর্নীতি রুখতে যুক্তরাজ্যভিত্তিক প্রতিষ্ঠান স্পোর্টরাডারের সঙ্গে চুক্তি করেছে বিসিসিআই। চুক্তির ফলে আইপিএলে দুর্নীতি ও অন্যান্য প্রতারণা ঠেকাতে কাজ করেছে যাবে স্পোর্টরাডার।