চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ডায়ানা অ্যাওয়ার্ড পেলেন বাংলাদেশি তরুণ শাহ রাফায়াত

বাংলাদেশি তরুণ শাহ রাফায়াত চৌধুরী পরিবেশ রক্ষা ও সামাজিক উদ্যোগের জন্য ডায়ানা অ্যাওয়ার্ড-২০২০ এ ভূষিত হয়েছেন। ২৪ বছর বয়সী রাফায়াত পরিবেশ রক্ষা ও সামাজিক উদ্যোগের জন্য এই পুরস্কার পান।

বাংলাদেশ থেকে রাফায়াত সহ মোট ছয়জন তরুণ এই অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন। এদের মধ্যে সবার আগে আছে শাহ রাফায়াত চৌধুরীর নাম, এরপরে পর্যায়ক্রমে রয়েছেন রফিউল হক, শেখ ইনজামামুজ্জামান, জহিরুল ইসলাম, সাবিরা মেহজাবিন সাবা ও সাকিয়া। তারা যথাক্রমে স্থানীয় জনগণকে সচেতন করা, শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও ভ্রমণের মতো বিষয়ে উদ্যোক্তা হিসেবে ভূমিকা রেখেছেন।

বিজ্ঞাপন

যুক্তরাজ্যের সাবেক প্রিন্সেস ডায়ানার নামে তার দুই ছেলে এই পুরস্কারের প্রবর্তন করেন। ২০২০ সালের এই পুরস্কারের জন্য রাফায়াতসহ ১০০ জনের নাম এসেছিল।

রাফায়াতকে এই পুরস্কার দেওয়ার কারণ হিসেবে সংস্থাটি বলেছে, তিনি নানা ধরনের জনগোষ্ঠীর উন্নয়নে ভূমিকা পালন করেছেন। সামাজিক পরিবর্তনের কারিগর হিসেবে ২০১৩ সাল থেকে কাজ করে চলেছেন। তার উদ্যোগে মোট ১৩টি সামাজিক উদ্যোগ ও প্রচার কার্যক্রম চলেছে। বাংলাদেশের ১৫টি জেলার এক লাখ মানুষের মধ্যে এসব উদ্যোগ পরিচালিত হচ্ছে।

বর্জ্য ব্যবস্থাপনা ও দুর্যোগে সাড়া দানে কার্যকর ভূমিকা রেখেছে রাফায়েতের এসব উদ্যোগ। করপোরেট প্রতিষ্ঠানগুলোর সামাজিক দায়িত্ব পালন তহবিলের সহায়তায় তিনি গরিব মানুষের নিরাপদ পানি দেওয়ার কাজ করেছেন, যার মাধ্যমে ১৪ হাজার শিশুসহ ৭৫ হাজার মানুষ নিরাপদ পানি পেয়েছে।

বিজ্ঞাপন

শাহ রাফায়াত পরিবেশ অর্থনীতি ও নীতি বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভানিয়া স্টেট বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন। ২০১৮ সালে তিনি ইউরোপিয়ান কমিশন থেকে বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ ১৬ জন তরুণ নেতার একজন নির্বাচিত হয়েছেন।

এছাড়া সুইজারল্যান্ডের এনজিও গ্লোবাল চেঞ্জ মেকার থেকে ২০১৭ সালে বিশ্বের ১৬ জন তরুণ নেতা এবং যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্টের কাছ থেকে জলবায়ু প্রশিক্ষণের পুরস্কার পান।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে এক পোস্টে রাফায়াত বলেন, ‘ সম্মানজনক ডায়না অ্যাওয়ার্ডের পুরষ্কার পেয়ে আমি সত্যিকার অর্থে গর্বিত। অনেকটা নীরবতার সঙ্গেই আমি কঠোর পরিশ্রম করে গিয়েছি। সব কিছুর জন্য সৃষ্টিকর্তার কাছে আমি কৃতজ্ঞ।’

তিনি আরও বলেন, ‘ডায়না অ্যাওয়ার্ডটি আমি আমার মা কাজী শাহনাজকে উৎসর্গ করছি। ছোট বেলায় মায়ের মুখ থেকে প্রিসেন্স ডায়নার বিশ্বময় মানব সেবাব বিষয়টি জেনেছি। ধন্যবাদ জানাচ্ছি আমাদের ফুটস্টেপের সকল সদস্যদের।’

ডায়ানা অ্যাওয়ার্ড কর্তৃপক্ষের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রাফায়াতের পুরস্কার পাওয়া উপলক্ষে দেওয়া বিজ্ঞপ্তিতে বলেন, এই পুরস্কার আরও তরুণকে এ ধরনের নেতৃত্বমূলক কাজে উৎসাহিত করবে। একটি ইতিবাচক পরিবর্তনে ভূমিকা রাখবে ।