চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

জিন্নাহর বক্তব্যে ছাত্রসমাজের ‘না-না’ ছিলো বাঙালির প্রথম প্রতিরোধ

পাকিস্তান জন্ম নেয়ার চার মাসের মধ্যে ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠা, আর ছাত্রলীগের যাত্রা শুরুর দুই মাসেরও কম সময়ের মধ্যে খোদ গভর্নর জেনারেলকে সরাসরি প্রত্যাখ্যান। সেদিন মুহম্মদ আলী জিন্নাহর বক্তব্যে ছাত্রসমাজ যে ‘নো-নো’ ধ্বনি তুলেছিলো, সেটাই ছিলো পাকিস্তানকে বলা বাঙালির প্রথম ‘না’।

সময়টা ছিল ১৯৪৮ সালের, মার্চ মাস। ২১ তারিখ এখনকার সোহরাওয়ার্দি উদ্যান আর তখনকার রেসকোর্স ময়দানে নাগরিক সংবর্ধনায় এবং ২৪ তারিখ কার্জন হলে বিশেষ সমাবর্তনে একনায়কী স্বভাবের মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ’র ঘোষণা- ঊর্দুই হবে পাকিস্তানের একমাত্র রাষ্ট্রভাষা।

শেখ মুজিবুর রহমান প্রতিষ্ঠিত ছাত্রলীগ কর্মীরা সেখানে প্রস্তুতি নিয়েই গিয়েছিলেন। পাকিস্তানের গভর্নর জেনারেল জিন্নাহর বক্তব্যে তাৎক্ষণিক ‘না না’ বলে প্রতিবাদ করে ছাত্রসমাজ। জিন্নাহর বিরুদ্ধে ছাত্রদের ওই প্রতিবাদই মূলত পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বাঙালির প্রথম প্রতিরোধ।

Advertisement

ছাত্র-তরুণদের সেই প্রতিবাদ জারি ছিলো পরের ২৩ বছর।

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধ শুরু পর্যন্ত ধাপে ধাপে এগিয়েছে বাঙালির মুক্তি সংগ্রাম যার পুরোধা ছিলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান।

আরও দেখুন ‍ভিডিও রিপোর্টে: