চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ছাতক গ্যাসক্ষেত্রে বিস্ফোরণের জন্য নাইকো দায়ী

ছাতক গ্যাসক্ষেত্রে বিস্ফোরণের জন্য নাইকো দায়ী। আন্তর্জাতিক সালিশি আদালত ইকসিড নাইকোকে দায়ী করে এই রায় দিয়েছেন।

ছাতক গ্যাসক্ষেত্র যত ক্ষতি হয়েছে তার পুরোটা দিতে হবে নাইকোকে। শুধু গ্যাসের ক্ষতি নয়, এর জন্য পরিবেশ এবং মানুষের যে স্বাস্থ্যগত ক্ষতি হয়েছে তারও ক্ষতিপূরণ দিতে হবে তাদের।

বিজ্ঞাপন

২০০৫ সালে দুই দফায় বিস্ফোরণ হয় ছাতকের টেংরাটিলা গ্যাসক্ষেত্রে। ইকসিড রায়ে বলেছেন: আন্তর্জাতিক মান অনুযায়ী কাজ না করায় বিস্ফোরণ হয়েছে। গ্যাসক্ষেত্র উন্নয়নের জন্য আন্তর্জাতিক মান ঠিক রাখা হয়নি বলেই বিস্ফোরণ হয়েছে। তাই নাইকো এই বিস্ফোরণের জন্য দায়ী।

বিজ্ঞাপন

এই রায়ের ফলে এখন থেকে ছাতক গ্যাসক্ষেত্রের পূর্ণ মালিকানা বাংলাদেশ সরকার পেল।

বিজ্ঞাপন

বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বলেছেন: টেংরাটিলা গ্যাসক্ষেত্রে কী পরিমাণ ক্ষতি হয়েছে তা মূল্যায়ন করে ক্ষতিপূরণ আদায়ের জন্য আবেদন করা হবে। পরে গ্যাসক্ষেত্র উন্নয়নের নতুন করে পরিকল্পনা করা হবে। এটা বাংলাদেশের জন্য বড় অর্জন।

তিনি বলেন: বিএনপি জোট সরকার ক্ষমতায় থাকাকালীন দুর্নীতি হয়েছে। এই রায়ের মাধ্যমে প্রমাণ হলো এটা নিয়ে বড় দুর্নীতি হয়েছে।

নাইকো এখন আন্তর্জাতিকভাবে দেউলিয়া কোম্পানি। তাই তার কাছ থেকে ক্ষতিপূরণ আদায় সম্ভব হবে কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

এ বিষয়ে জ্বালানি বিভাগের সিনিয়র সচিব বলেন: মামলায় আমরা জিতেছি এটাই বড় পাওয়া। এছাড়া নাইকো যে টাকা বাংলাদেশ সরকারের কাছে পেত গ্যাসের বিল হিসেবে তা আর দেয়া লাগবে না। ৯ নম্বর গ্যাসক্ষেত্রটি আমরা নিয়ে নেব। এটা বড় অর্জন।