চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

গয়না বেচে, ধার করে কুকুরদের খাওয়ান নীলাঞ্জনা

রাস্তায় ঘুরে বেড়ানো কুকুর লালন-পালনের জন্য নীলাঞ্জনা বিশ্বাস (৪৫) ধার করেছেন কয়েক লাখ টাকা। শুধু তাই নয়, তাদের প্রতি ভালোবাসায় স্বামীর ইচ্ছার বিরুদ্ধে গিয়ে বিক্রি করেছেন দুই লাখ টাকার গয়নাও।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানায়, ভারতের পশ্চিমবঙ্গের কল্যাণী এলাকার গৃহবধূ নীলাঞ্জনা বিশ্বাস রাস্তার অন্তত চারশো কুকুরকে নিয়মিত খাওয়ান। এছাড়াও সেইসব কুকুরের চিকিৎসা ও টীকা দেওয়ার ব্যবস্থা করেন। কারো সাহায্য ছাড়াই এসব কাজ তিনি নিজ উদ্যোগেই করেন।

বিজ্ঞাপন

নীলাঞ্জনা শহরে ঘুরে ঘুরে বেওয়ারিশ কুকুর খোঁজে বের করেন। সেই কুকুরদের তিনি সেবাযত্ন করেন।

কেন এই কাজ করেন- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমি সব সময় কুকুর পছন্দ করি। আমার বাড়িতে ১৩টি কুকুর আছে, যার মধ্যে ১২টি রাস্তার কুকুর। আমি বুঝতে পারি যে, শহরের অন্যান্য কুকুরের প্রতিও আমার কিছু নির্দিষ্ট দায়বদ্ধতা আছে।’

বিজ্ঞাপন

নীলাঞ্জনা আরও যোগ করেন, ‘তার স্বামী এবং প্রতিবেশীরা কুকুরের প্রতি এমন ভালোবাসার বিরুদ্ধে। তবে তার কলেজপড়ুয়া মেয়ে এবং স্কুল পড়ুয়া সন্তান তাকে সমর্থন করে।

ইংরেজিতে এমএ পাস করা এই নারীর শখ ভাতের পাত্র নিয়ে শহরে ঘুরে বেড়ানো কুকুরকে খাওয়াতে। তার বাড়ির রান্না ঘরের ফ্রিজে কুকুরের জন্য খাবার প্রস্তুত থাকে সব সময়। তিনি কুকুরকে প্রতিদিন ভাত এবং মুরগির মাংস খেতে দেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা প্রথমে রাস্তার পাশে কয়েকটি প্লাস্টিকের পাত্র রাখি। পাত্রে মুরগির মাংস এবং ভাত রাখি। পানি আলাদা স্থানে রাখি। কুকুরগুলিকে খাওয়ানোর পর আমরা পাত্র এবং সেই এলাকাটি পরিষ্কার করে ফেলি।’

স্থানীয়রা মনে করেন নীলাঞ্জনা বিশ্বাস এই ক্ষেত্রে এলাকার অন্যদের অনুপ্রাণিত করছেন। তার থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে অনেকে রাস্তার প্রাণীদের খাওয়ানো শুরু করেছেন। এভাবে তিনি নিজ এলাকার অনেককে অনুপ্রাণিত করেছেন।

Bellow Post-Green View