চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

খালেদার বিরুদ্ধে হত্যা-রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার প্রতিবেদন ১৭ মে

অবরোধে ৪২ জনকে পুড়িয়ে মারা ও রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগে বেগম খালেদা জিয়াসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার প্রতিবেদন ১৭ মে আদালতে জমা দেয়ার নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

জননেত্রী পরিষদের প্রেসিডেন্ট এবি সিদ্দিকী গত ২ ফেব্রুয়ারি ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম (সিএমএম) আদালতে মামলাটি দায়ের করেন। ওইদিনই শুনানি শেষে মামলার বিষয়ে তদন্ত করে রাজধানীর গুলশান থানাকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছিল আদালত।

মামল‍ার অন্য তিন অভিযুক্ত হলেন- বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ড. এমাজউদ্দিন আহম্মেদ এবং ভাইস চেয়ারম্যান শমসের মবিন চৌধুরী।

মামলার অভিযোগে বলা হয়েছে, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম  খালেদা জিয়া তার গুলশান কার্যালয়ে ৫ জানুয়ারি বিকেল ৫টায় সারাদেশে শান্তিপূর্ণ অবরোধ পালনের ঘোষণা দেন এবং এর পর দফায় দফায় হরতাল আহ্বান করেন। এ কর্মসূচির ঘোষণার পর থেকে ১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সারাদেশে অগ্নিদগ্ধ হয়ে ৪২ মারা গেছেন এবং সরকারের কোটি কোটি টাকা ক্ষতি হয়েছে।

এসব অভিযোগ এনে দণ্ডবিধির ৩০২, ৩৪ ও ১০৯ ধারায় আদালতে এসে জননেত্রী পরিষদের সভাপতি মামলাটি দায়ের করেন।

এর আগে রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে বাসে পেট্রোল বোমা ছুঁড়ে মানুষ মারা ও কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে কাভার্ডভ্যানে পেট্রোল বোমা হামলার অন্য এক ঘটনায় খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করে মামলা হয়।