চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ক্ল্যাসিকো জিতে বার্সেলোনার উপরে রিয়াল

এল ক্ল্যাসিকোতে ২-০ গোলের দারুণ এক জয়ে বার্সেলোনাকে টপকে লা লিগা টেবিলের শীর্ষে উঠেছে রিয়াল মাদ্রিদ। ভিনিসিয়াস জুনিয়র ও মারিয়ানো ডিয়াজের গোলে ঘরের মাঠে জয় তুলেছে জিনেদিন জিদানের দল।

সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে এই জয়ে ২৬ ম্যাচে ৫৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে উঠে গেছে রিয়াল। সমান ম্যাচে বার্সেলোনা ৫৫ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে।

সাত ম্যাচ পর চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সার বিপক্ষে জয় তোলা রিয়াল শুরু থেকেই ছিল সাবধানী। গোলশূন্য প্রথমার্ধে অবশ্য দুদলই সুযোগ হাতছাড়া করেছে। অতিথি বক্সে বল পেয়েও কাজে লাগাতে পারেননি বেনজেমা। মিনিট দশেক পর গ্রিজম্যানও একই কাজ করেন।

বিজ্ঞাপন

ম্যাচের ৩০ মিনিটে মেসি রিয়াল গোলরক্ষক বরাবর শট নিয়ে লক্ষ্য অর্জন করতে পারেননি। দুমিনিট পর হেড লক্ষ্যে থাকেনি বেনজেমার। পাল্টা আক্রমণে আর্থার স্বাগতিক গোলরক্ষককে একা পেয়েও জালের নাগাল পাননি।

বিরতির আগে কোর্তয়া রিয়ালকে বাঁচান আরেকবার। দারুণ প্রচেষ্টা ছিল মেসির। গোলশূন্য প্রথমার্ধের পর বিরতি থেকে এসে দ্বিতীয়ার্ধে চিত্র পাল্টাতে থাকে। বার্সা এসময় বলের দখল রেখে আক্রমণ গড়তে থাকে। কিন্তু রিয়াল রক্ষণে খাবি খায় মেসিদের প্রচেষ্টাগুলো।

রক্ষণ সামলে দ্রুতই আক্রমণে ফেরে রিয়াল। ইস্কোর দুদফা ভয়ঙ্কর প্রচেষ্টা ব্যর্থ করে দেয়ার পর বেনজেমাকে একবার ঠেকিয়ে ৭১ মিনিটে আর পারেনি বার্সা। টনি ক্রুসের পাসে বল পেয়ে রিয়ালকে এসময় এগিয়ে দেন ভিনিসিয়াস জুনিয়র। তার শট পিকের গায়ে লেগে দিক পাল্টে গোলরক্ষক টের-স্টেগেনকে ফাঁকি দেয়।

পরের দশমিনিটে মেসির শট স্বাগতিক রক্ষণে আটকে যায়। মেসির ফ্রি-কিক থেকে পিকের হেড লক্ষ্য খুঁজে পায়নি তার খানিক বাদে। যখন হতাশায় ডোবার খুব কাছে বার্সা, যোগ করা সময়ে তখন হতাশা দ্বিগুণ করে দেন ডিয়াজ। বদলি নেমেছিলেন, নেমেই ঝলক। চলতি মৌসুমে লিগে নিজের প্রথম গোলটি করে ২-০ বানান স্কোরবোর্ড।

বিজ্ঞাপন