চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কোভিড-১৯: শীতে যেভাবে প্রস্তুতি নিচ্ছে রেস্টুরেন্টগুলো

রেস্টুরেন্টে খাবার সবচেয়ে জনপ্রিয় মৌসুম হচ্ছে গরমকাল। গরমকাল শেষ হওয়ার আসছে শীতকাল। শীতকালে উত্তর গোলার্ধের রেস্তোঁরা এবং বারগুলিতে গরমকালের ন্যায় বাইরে খেতে আসা গ্রাহকদের করোনার কারণে ধরে রাখা নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন কোভিড ট্রান্সমিশনের হার ঘরে চেয়ে বাইরে কম। এ কারণে, রেস্তোরাঁগুলি গ্রাহকরা যাতে বাইরে নিরাপদ বোধ করেন তার জন্য চেষ্টা করছেন। ‘উডস হিল পিয়ার’ রেস্তোঁরা মালিক ক্রিস্টিন ক্যান্টি বোস্টন, ম্যাসাচুসেটসের শাখাগুলোতে গ্রাহকদের নিরাপদে বসার জন্য করোনামুক্ত ছোট ছোট কুটির তৈরি করেছেন।

বিজ্ঞাপন

ক্রিস্টিন ক্যান্টি বিবিসিকে জানিয়েছেন, আমরা আশা করি এরপর হয়তো আমাদের ব্যবসার প্রসার হবে। তবে এই মুহূর্তে আমি আমার বিনিয়োগ ফিরে পাব কিনা তা বলা কঠিন। এটি এই শীতের আবহাওয়া এবং কুটিরগুলো টিকে থাকার ওপর নির্ভর করবে।”

তবে করোনার জন্য তৈরি করা ওই কুটিরগুলো গ্রাহকদের দেখার জন্য এবং সামাজিক দূরত্ব বজায়ে রেখে সেখানে বসে খাওয়ার জন্য উন্মুক্ত রাখা হয়েছে। “যদি এটি একটি বিশাল আলোড়ন তুলেছে, এবং কুটিরগুলো স্থায়ী হলে আমরা এটি পরের বছর পুনরাবৃত্তি করতে পারি বলে জানিয়েছেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

ক্যান্টি আরও বলেছেন, তার ওই কাঠামো গ্রাহকদের মধ্যে ব্যাপক সারা ফেলেছে। এমনকি অন্য রেস্টুরেন্টরা এ কাঠামোর বিষয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

প্রত্যেককে নিজের জায়গা থেকে সবচেয়ে ভাল করার চেষ্টা করছে জানিয়ে তিনি বলেন, “আমরা সবাই এই পরিবেশে অতিথিদের ফিরিয়ে আনা এবং সুরক্ষিত রাখার জন্য সৃজনশীল হওয়ার চেষ্টা করছি। লন্ডনে বেশ কয়েকটি রেস্তোঁরা আউটডোর এলাকায় খুলেছে এবং এর সংখ্যা দিন দিন বাড়াচ্ছে।

উত্তর লন্ডন, টটেনহ্যামে র্দীঘ দিন বন্ধ থাকার পর রেস্টুরেন্টুগুলো খোলার পর বেশ সাড়া ফেলেছে। শীতের মাসগুলিতে পুরোদমে ব্যবসার জন্য ব্রিটিশ আবহাওয়া মোকাবেলায় একটি মার্কি এবং আউটডোর হিটিং স্থাপন করবে রেস্টুরেন্ট মালিকরা।

“আবহাওয়া প্রতিকূলতার কথা জানিয়ে বলা হয়, আমরা নিশ্চিত আমাদের সঠিক নির্দেশিকা রয়েছে যাতে গ্রাহকরা আমাদের টেপ-রুমে একটি সুস্বাদু বিয়ার উপভোগ করতে পারে বলে জানিয়েছে ব্রিটিশ এক রেস্টুরেন্ট মালিক।”