চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কেঁপে উঠলো বাংলাদেশ

সাম্প্রতিক সময়ের সবচেয়ে শক্তিশালী ভূমিকম্পে কেঁপে উঠলো বাংলাদেশ। এর উৎপত্তিস্থল ছিলো নেপালে। নেপাল ছাড়াও ভারতের কয়েকটি রাজ্য, চীনের তিব্বত এবং মিয়ানমারে ভূ‌মিকম্প অনুভূত হয়েছে। তবে  নেপা‌লে ক্ষয়ক্ষতি সবচেয়ে বেশি ।

মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ (ইউএসজিএস) জানিয়েছে, সাত দশমিক ৯ মাত্রার ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল ছিলো ঢাকা থেকে ৫শ’ ৪৫ কিলোমিটার উত্তর-পশ্চিমে নেপালের পোখারার লামজুং-এ।

সাম্প্রতিক সময়ে এটিই বাংলাদেশে সবচেয়ে বড় ভূমিকম্প বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অফিস।

আবহাওয়াবিদ মো. মজিবুল ইসলাম জানান, সাম্প্রতিককালে এতো বড় ভূমিকম্প এই এলাকায় হয়নি। এর আগে সর্বশেষ বড় ভূমিকম্পের মাত্রা ছিলো ৮.৪ বা ৮.৩।

নেপালের কাছে কেন্দ্রস্থল থাকায় বাংলাদেশের উত্তরবঙ্গে সবচেয়ে বেশি কম্পন অনুভূত হয়েছে। ঢাকায় জায়গা ভেদে ৪.৫ থেকে ৫ মাত্রায় ভূকম্পন অনুভূত হয় বলে জানিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূতত্ত্ব বিভাগের ড. হুমায়ূন আখতার।

বেলা সোয়া ১২টার দিকে হঠাৎ করেই কেঁপে উঠে রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশ। ভূমিকম্পে আতঙ্কিত হয়ে উঁচু ভবন থেকে বাইরে বেরিয়ে আসেন সাধারন মানুষ। ছুটি হয়ে যায় স্কুল-কলেজসহ অনেক প্রতিষ্ঠান। অনেক জায়গায় ছুটোছুটি করে নামতে গিয়ে আহত হওয়ার ঘটনা ঘটে।

ভূমিকম্পের প্রায় ৪০ মিনিট পর পঞ্চগড়, কুমিল্লাসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় দ্বিতীয় দফায় কম্পন অনুভত হয়। আবহাওয়াবিদরা একে ‘আফটার শক’ বলেছেন।

Advertisement

রাজধানীসহ
সারাদেশে দুপুর সোয়া ১২টার
দিকে অনুভূত হয় মূল ভূমিকম্প আতঙ্ক
ছড়িয়ে পড়ে দেশজুড়ে মানুষের
মধ্যে অফিস
বাসা ছেড়ে সবাই নেমে
আসেন খোলা আকাশের নিচে দ্রুত
নামতে গিয়েই ঘটে অঘটন

পাবনায় আতঙ্কে এক
স্কুল শিক্ষকার মৃত্যু হয়। এছাড়াও বগুড়ার  দুপচাঁচিয়ায় নিহত হয়েছেন মোর্শেদা বিবি নামের একজন নারী।

ভূমিকম্পে দেশের বিভিন্ন স্থানে হেলে পড়েছে ভবন, কোথাও কোথাও ভবনে দেখা দিয়েছে ফাটল। পুরান ঢাকার চকবাজারের ইসলাম নগরে ৬ তলা ভবনের এক পাশ মাটিতে দেবে যায়। হেলে পড়ে পাশের ৪ তলা একটি ভবনের উপর। আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে পুরো এলাকায়। এ সময় দ্রুত ভবন থেকে নামতে গিয়ে আহত হন বেশ কয়েকজন। ফায়ার সার্ভিস এবং পুলিশ সদস্যরা ভবনটি খালি করে তালা লাগিয়ে দেয়।

এছাড়াও বংশালে ৬ তলা একটি ভবন পাশের আর একটি ভবনের উপর হেলে পড়ে। রাজধানীর শ্যামলীর আশা টাওয়ার, মিরপুরের মাজার রোডে ডায়মন্ড গার্মেন্টস, ইসলামপুরে ৬ তলা ভবন, নবাবপুর পুলিশ ফাঁড়ির কাছে বহুতল ভবন, গাবতলি বাস-ট্রাক মালিক সমিতি ভবন, পুরান ঢাকার বরিশাল প্লাজা হেলে পড়েছে বলে জানিয়েছে ফায়ার সার্ভিস।

ভূমিকম্পের সময় ডিবি’র মিডিয়া সেন্টারে চলছিলো পুলিশ কমিশনারের ব্রিফিং। সেসময় আতঙ্কিত পুলিশ কর্মকর্তা ও সাংবাদিকরা ব্রিফিং স্থল ছেড়ে ছুটে বাইরে চলে আসেন।