চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনা মোকাবেলায় শাকিবের এক ছবির বাজেট ব্যয়

করোনা মোকাবেলায় ব্যয় হচ্ছে শাকিবের আসন্ন ‘নবাব এলএলবি’ ছবির বাজেট…

আসন্ন ঈদুল ফিতরে জনপ্রিয় নায়ক শাকিব খানকে নিয়ে ‘নবাব এলএলবি’ ছবি নির্মাণের সব প্রস্তুতি নিয়েছিলেন পরিচালক অনন্য মামুন এবং তার সেলেব্রেটি প্রডাকশন হাউজ। ২৮ মার্চ থেকে শুটিং শুরুর পরিকল্পনা থাকলেও মহামারী করোনাভাইরাসের প্রকোপে শুটিং বাতিল হয়। তাই ‘নবাব এলএলবি’ ছবির বাজেটের পুরো টাকাই করোনা মোকাবেলায় ব্যয় করা হচ্ছে!

গত চারদিন ধরে রাজধানীর কুর্মিটোলা, কুয়েত মৈত্রী, আল বারাকাসহ বেশকিছু হাসপাতালে তৎপর চিকিৎসক ও রাস্তায় আইন শৃঙ্খলা বাহিনির সদস্যদের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে ২৫ হাজার পিপিই (পারসোনাল প্রটেকটিভ ইকুইপমেন্ট) বিতরণ করা হয়েছে। আগামিতে এ কার্যক্রম চলমান থাকবে বলে জানিয়েছেন নির্মাতা অনন্য মামুন।

বিজ্ঞাপন

চ্যানেল আই অনলাইনে এ খবর জানিয়ে তিনি বলেন, ধাপে ধাপে ‘নবাব এলএলবি’ ছবির পুরো বাজেট করোনাভাইরাস মোকাবেলায় ব্যয় করা হচ্ছে। পিপিই ছাড়াও আমরা এক হাজার অসচ্ছল মানুষকে খাবার দিয়েছি। আমিসহ সেলেব্রেটি প্রোডাকশন তত্ত্বাবধানে যিনি আছেন, তিনি সামনে না এলেও এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন।

এ কার্যক্রমে শাকিব খানের পূর্ণ সমর্থন দিয়েছেন বলে জানান অনন্য মামুন। তিনি বলেন, দেশের পরিস্থিতি যখনই স্বাভাবিক হবে, তখনই শুটিংয়ে যাবো। তার আগে এ ক্রান্তিকালে আপাতত ছবির যে বাজেট রাখা হয়েছিল ওই অর্থ পুরোটাই ধাপেধাপে ব্যয় করা হচ্ছে। শাকিব ভাই খুবই আন্তরিকতার সাথে এতে সাপোর্ট দিয়েছেন।

সোমবার বিকেলে শাকিব খান চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্ট সংকটে প্রত্যেক সামর্থ্যবানদের উচিত তার কাছের মানুষগুলো যেন ভালো থাকে সেটা নিশ্চিত করা। আমি শুরু থেকেই এ ব্যাপারে সচেষ্ট।

তিনি বলেন, দেশের যেহেতু ক্রাইসিস মোমেন্ট তাই এ সময়ে ‘নবাব এলএলবি’ ছবির কোনো শিল্পী, টেকনিশিয়ানের টাকা নিয়ে বসে থাকার দরকারও নেই। এই টাকাটাই করোনার সাহায্যার্থে দেয়া হচ্ছে। এর মাধ্যমে কিছু ডাক্তার, আইন শৃঙ্ক্ষলার কাজে নিয়োজিতসহ সাধারণ মানুষ উপকৃত হবে। তবে এ সাহায্য যেন লোক দেখানো পাব্লিসিটি না হয়ে মানুষের নিঃস্বার্থ উপকার করা হয় সেদিকেও খেয়াল রাখতে বলেছি।

অনন্য মামুনের পরিচালনায় সেলেব্রেটি প্রোডাকশনের ‘নবাব এলএলবি’ ছবিতে শাকিব খান ছাড়াও থাকছেন মাহিয়া মাহি ও স্পর্শিয়া।