চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনা আক্রান্ত ভারতের পাশে বলিউড তারকারা

করোনায় বিপর্যস্ত ভারত। এই দুর্দিনে ভারতের মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন বলিউড তারকারা। নানা ভাবে সাহায্য করছেন তারা। সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করে অন্যদেরকেও পাশে দাঁড়ানোর অনুরোধ করছেন অনেকেই।

প্রিয়াঙ্কা চোপড়া: করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় স্বামী নিক জোনাসকে নিয়ে ভারতের পাশে আছেন প্রিয়াঙ্কা। তিনি একটি ফান্ডরাইজার লঞ্চ করেছেন। এর মাধ্যমে সংগ্রহীত অর্থ দিয়ে দিয়ে ভ্যাকসিন, ও জরুরী চিকিৎসা সামগ্রী কেনা হবে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

অক্ষয় কুমার ও টুইংকেল খান্না: অক্ষয় কুমার ১০ মিলিয়ন রুপি দান করেছেন গৌতম গম্ভীরের ফাউন্ডেশনে। এই অর্থ দিয়ে খাবার, ওষুধ ও অক্সিজেন কেনা হবে। এছাড়াও শনিবার টুইংকেল খান্না টুইটারে লিখেছেন, তারা ১০০টি অক্সিজেন জেনারেটর দান করেছেন।

সালমান খান: করোনার প্রথম ঢেউয়ের মতো দ্বিতীয় ঢেউয়েও মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন সালমান খান। সালমান খানের মা নিজের হাতে খাবার রেঁধে পুলিশদের খাইয়েছেন। এবারও বিয়িং হাংরির পক্ষ থেকে খাবার দেয়া হচ্ছে অভুক্তদের। সেই খাবারের স্বাদ ঠিকঠাক আছে কিনা তা সালমান নিজেই পরীক্ষা করে নিচ্ছেন।

সোনু সুদ: করোনাকালে সবচেয়ে বেশি সক্রিয় তারকা সোনু সুদ। করোনার দ্বিতীয় ঢেউতে তিনি অসুস্থদের জন্য হাসপাতালে যায়গার ব্যবস্থা করছেন, অক্সিজেনের ব্যবস্থা করে দিচ্ছেন। একজন গুরুতর রোগীকে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সের ব্যবস্থাও করে দিয়েছেন। জীবনদায়ী ইনজেকশন কিনে দিচ্ছেন তিনি। পুরো লকডাউনে এক গ্রামের মানুষকে খাওয়ানোর ব্যবস্থাও করেছেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

সুস্মিতা সেন: কিছুদিন আগেই সুস্মিতা সেন টুইটারে টুইট করেছিলেন মুম্বাই থেকে দিল্লীতে অক্সিজেন পাঠানোর জন্য। পরেরদিনই তিনি জানান, মুম্বাই থেকে দিল্লীর হাসপাতালে অক্সিজেন পাঠানোর ব্যবস্থা করতে পেরেছেন তিনি।

আলিয়া ভাট: কিছুদিন আগেই মালদ্বীপ ভ্রমণে গিয়ে সমালোচনার শিকার হয়েছিলেন আলিয়া। আর এখন প্রশংসা পাচ্ছেন অভুক্ত মানুষের জন্য খাবারের ব্যবস্থা করে। ‘খানা চাহিয়ে’ নামের একটি প্রতিষ্ঠানের সাথে তিনি যুক্ত হয়েছেন। এই প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে অভুক্তদের কাছে পৌঁছে দেয়া হবে খাবার।

শিল্পা শেঠি: আলিয়া ভাটের মতোই শিল্পা শেঠিও ‘খানা চাহিয়ে’র সাথে যুক্ত হয়ে অভুক্ত মানুষদের কাছে খাবার পৌঁছে দেবেন।

জন আব্রাহাম: সোশ্যাল মিডিয়ায় জন আব্রাহাম জানিয়েছেন, তিনি কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের সাথে চুক্তি করে করোনায় কাজ হারানো মানুষকে সাহায্য করছেন।

অজয় দেবগণ: বিএমসির সাথে পার্টনারশিপে আইসিইউ তৈরি করার জন্য আর্থিক সাহায্য করছেন অজয়।

লতা মঙ্গেশকর: মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী রবিবার জানিয়েছেন, লতা মঙ্গেশকর করোনা মোকাবেলার জন্য ৭ লাখ রুপি আর্থিক সাহায্য করেছেন।