চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনাভাইরাস: পিছিয়ে গেল টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ

ঘোষণা না আসা পর্যন্ত খানিকটা আশা যদিও ছিল, বিশ্ব গণমাধ্যমের নানা প্রতিবেদন তাতে জল ঢেলে এসেছে গত দুমাস ধরেই। অবশেষে আশঙ্কাই সত্যি হল। পিছিয়ে দেয়া হয়েছে বছরের শেষে বসার অপেক্ষায় থাকা ছেলেদের টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ।

সোমবার বৈশ্বিক ক্রিকেটের অভিভাবক সংস্থা আইসিসি বোর্ড মিটিং শেষে বিশ্বকাপ স্থগিতের খবর নিশ্চিত করে। ক্ষতি পুষিয়ে নিতে আইসিসি নতুন সূচি ঠিক করেছে তাদের বড় ইভেন্টগুলোর।

বিজ্ঞাপন

২০২০ টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ অক্টোবর-নভেম্বরে অস্ট্রেলিয়ায় আয়োজন হওয়ার সূচি ছিল। করোনাভাইরাস মহামারীর ধাক্কা সার্বিক সূচিতে যে বিপর্যয় ঘটিয়েছে, সেটার প্রভাব পড়ল এই আসরটিতেও।

বিজ্ঞাপন

আসছে ১৮ অক্টোবর থেকে ১৫ নভেম্বর পর্যন্ত হওয়ার কথা ছিল মারকাটারি ক্রিকেটের সপ্তম আসরটি। মহামারীর সময়ে ১৬ দল নিয়ে আয়োজন, দলগুলোকে অস্ট্রেলিয়ায় পৌঁছে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে রাখা, সেসময়ের ব্যয় বহন, স্বাগতিকদের জন্য পরিস্থিতি নাজুকই ছিল।

বিজ্ঞাপন

চলতি বছরের আসর পিছিয়ে দেয়ার সঙ্গে সঙ্গে আইসিসি ছেলেদের পরের তিনটি বিশ্বকাপের সূচিও পুননির্ধারণ করেছে। আসছে তিন বছরে তিনটি বিশ্বকাপের দেখা মিলবে তাতে।

এ বছরের টি-টুয়েন্টি আয়োজনটি হবে ২০২১ সালের অক্টোবর-নভেম্বরে, ফাইনালের জন্য ১৪ নভেম্বর লক্ষ্যে রাখা হয়েছে। পরের টি-টুয়েন্টি আসরটি হবে ২০২২ সালের অক্টোবর-নভেম্বরে, যা ২০২১ সালে ভারতে হওয়ার কথা ছিল। তবে কোন সালের আসরটি ভারত, আর কোনটি অজিরা আয়োজন করবে তা এখনও ঠিক হয়নি।

আর ২০২৩ সালের ফেব্রুয়ারি-মার্চে ভারতে হওয়ার কথা থাকা ওয়ানডে বিশ্বকাপটি পিছিয়ে একই বছরের অক্টোবর-নভেম্বরে নিয়েছে আইসিসি, ফাইনালের জন্য রাখা হয়েছে ২৬ নভেম্বরকে।

এদিকে, ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ডে যে মেয়েদের বিশ্বকাপের আসর বসার কথা আছে, আইসিসি আপাতত সেটি যথাসময়ে আয়োজনের সিদ্ধান্ত বহাল রেখেছে।