চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনাভাইরাস: দুঃসময়ে অনাহারীদের পাশে মডেল রাসেল

করোনাভাইরাসের প্রভাবে নগরের অসচ্ছল মানুষের মুখে দুমুঠো খাবার পৌঁছে দিতে রাস্তায় রাস্তায় ছুটছেন একাধিক মিউজিক ভিডিওতে কাজ করে পরিচিতি পাওয়া মডেল শাহিদুজ্জামান রাসেল।

বর্তমানে তিনি একটি সামাজিক স্বেচ্ছাসেবক সংগঠন প্রতিষ্ঠা করে নিজেই টিমের সদস্য হিসেবে কাজ করছেন। ইতোমধ্যে তিন শতাধিক পরিবারের কমপক্ষে দশ দিনের খাবার নিশ্চিত করেছেন রাসেল।

বিজ্ঞাপন

চ্যানেল আই অনলাইনকে তিনি বলেন, রাজধানীর অনাহারে থাকা মানুষদের কাছে গিয়ে খাদ্য বিতরণ করছি। `আহার অভিযান- COVID 19′ স্লোগানের মাধ্যমে ফান্ড গঠন করে করোনা পরিস্থিতিতে অসহায়, দিনমজুর ও পেট চুক্তি মানুষের মুখে আহার তুলে দিচ্ছি।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, আমার সামাজিক স্বেচ্ছাসেবক সংগঠন বাংলাদেশের প্রতিটি বিভাগে চেষ্টা করছে অনাহারে থাকা দরিদ্র মানুষের পাশে খাবার পৌঁছে দেওয়ার জন্য। রাসেল বলেন, ঢাকা, চট্টগ্রাম, রাজশাহীসহ বেশ কিছু বিভাগে তাদের কার্যক্রম চালু করে দিয়েছে। অল্পদিনেই দেশব্যপী প্রায় ৩ হাজার কর্মী কাজ করছে কাজ করছে।

রাসেল জানান, আমাদের লক্ষ্য অনাহারে থাকা মানুষদের মুখে আহার তুলে দেওয়া এবং করোনা সম্পর্কে তাদেরকে সচেতন করে এ ভাইরাস মোকাবেলায় এগিয়ে আসা। এ কাজে চারপাশের বিভিন্ন মানুষ তাদের সামর্থ্যের মধ্য থেকে দান করছেন। সেই টাকায় মানুষের কাছে খাবার পৌঁছে দিচ্ছি।

দেশে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার শুরু থেকেই স্বেচ্ছাসেবক হয়ে মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ ও অসহায় দরিদ্র মানুষের পাশে থেকে কাজ করছেন রাসেল। তিনি বলেন, আগে বাজার করে চাল ডালসহ অন্যান্য জিনিস দিয়েছিলাম। শুক্রবার রাতে রান্না করে খাবার নিয়ে মানুষের ঘরে ঘরে গিয়েছি। বিপদে পাশে থাকাই হচ্ছে মানুষের সবচেয়ে বড় মনুষ্যত্ব, সেটাই করার চেষ্টা করছি। শুধু করোনা নয়, আগামীতে যেকোনো প্রয়োজনে নিজেকে সামনে রাখবো।