চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনাভাইরাস: কানাডায় ধীরে ধীরে খুলছে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের এই সময়ে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মতো কানাডায়ও মৃত্যুর সংখ্যা উল্লেখ করার মতো। কোভিড-১৯ এ ৭ হাজারের বেশি মৃত্যুর মধ্যে কুইবেকের মন্ট্রিয়ল এবং অন্টারিও’র টরন্টো শহরেই বেশি। তবে অর্ধেকের চেয়ে বেশি ক্যুইবেক প্রদেশে। এরই মধ্যে খুলতে শুরু করেছে বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান।

কানাডায় করোনাভাইরাস অর্থাৎ কোভিড-১৯ এ মৃত্যুর সংখ্যা সাত হাজার ছাড়িয়ে এখন দাঁড়ালো ৭,৮৯৭ জন। আক্রান্তের পরিমাণ ৯৬ হাজার ৬শ’ ৫৩ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন ৫৫ হাজার ৫৭২ জন।

বিজ্ঞাপন

কানাডার আলবার্টায় স্টেজ ২-এ পাবলিক লাইব্রেরি, সিনেমা থিয়েটার, কমিউনিটি হল, ব্যক্তিগত সার্ভিস এবং টিমন স্পোর্টস সহ একাধিক ব্যবসা ও প্রতিষ্ঠান খুলবে।

বিজ্ঞাপন

সেইসঙ্গে কিন্ডারগার্টেন থেকে গ্রেট -১২ স্কুল ডিপ্লোমা পরীক্ষা এবং গ্রীষ্মকালীন স্কুলগুলি ও খুলতে সক্ষম হবে।

বিজ্ঞাপন

এছাড়া ইনডোর ইভেন্ট এর জন্য ৫০ জন এবং আউটডোর ইভেন্ট এর জন্য ১০০ এর আওতায় পরবে।

কানাডায় বিভিন্ন প্রভিন্সে মসজিদে জুম্মার নামাজসহ অন্যান্য নামাজ শুরু হয়েছে।

উল্লেখ্য কানাডার ভ্যাংকুভারে গত ৮ মার্চ প্রথম করোনায় মারা গেলেও এখন ভ্যাঙ্কুভার ঘুরে দাঁড়াচ্ছে। তুলনামূলক ব্রিটিশ কলম্বিয়ায় মৃতের সংখ্যা অনেক কম। কানাডার ভ্যানকুভার শহরে টানা চতুর্থ দিনের মতো কোন মৃত্যুর সংখ্যা নেই।এই শহরে মৃত্যুর বেশিরভাগই বয়স্ক ব্যক্তি এবং ওল্ড কেয়ার হোমগুলিতেই পরিমাণ বেশি।

এদিকে আগামী ২১ জুন কানাডা-আমেরিকার বর্ডার খুলে দেয়ার কথা রয়েছে। ইতিমধ্যে পারিবারিক সদস্যদের আসা-যাওয়া শুরু হয়েছে।