চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কই, আমি তো অবসর ঘোষণা করিনি

বিশ্বকাপ শেষে অবসর নেবেন, এমন ঘোষণা দিয়েও সরে এসেছেন। ধারণা করা হচ্ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে ব্রায়ান লারার রান ও ম্যাচের রেকর্ডের খুব কাছে দাঁড়িয়ে জন্য মত পাল্টেছেন ক্রিস গেইল। কিন্তু ভারতের বিপক্ষে চলতি সিরিজে দুটি রেকর্ডই নিজের নামের পাশে লিখিয়ে অনেক ইঙ্গিত দিয়েও অবসরের পথে হাঁটলেন না বাঁহাতি এ মহাতারকা।

বুধবার ভারতের বিপক্ষে উইন্ডিজের ম্যাচ ও সিরিজ হারা ওয়ানডেতে গেইল ঝড়ের দেখা মিলেছে। পোর্ট অব স্পেনে শুরুতে ব্যাট করে ৩৫ ওভারে নেমে আসা ম্যাচে ৭ উইকেটে ২৪০ রান তোলে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সমান ওভারে ভারতের পরিবর্তিত লক্ষ্য দাঁড়ায় ২৫৫, যা ৩২.৩ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ছুঁয়ে ফেলে সফরকারীরা, বিরাট কোহলির টানা দ্বিতীয় শতকে।

বিজ্ঞাপন

কোহলির সেঞ্চুরির আগে ব্যাটিংয়ে এসে নিজেদের ইনিংসের শুরুতে ঝড় তোলেন গেইল। এভিন লুইসকে নিয়ে আগ্রাসী ব্যাটিংয়ে ১০.৫ ওভারের জুটিতে তোলেন ১১৫ রান। লুইস ২৯ বলে ৪৩ করে যান। আর গেইল ৮ চার ও ৫ ছক্কায় ৪১ বলে ৭২ করে ফেরেন, খলিলের বলে কোহলিকে ক্যাচ দিয়ে।

বিজ্ঞাপন

ম্যাচের শুরু থেকে ঝড়ো এই ইনিংসটি শেষের পথে পথে অবসরের ইঙ্গিত দিয়েছেন গেইল! ম্যাচে নেমেছেন পরিবর্তিত বিশেষ জার্সি নাম্বার পরে, ৩০১, এটা ক্যারিবীয়দের হয়ে সর্বোচ্চ ম্যাচ খেলার রেকর্ড, তারই দখলে। এই সিরিজেই আগের ম্যাচে রানে লারাকে টপকে ক্যারিবীয়দের চূড়ায় উঠেছেন।

পরে ক্যাচ হয়ে যখন সাজঘরে ফিরছিলেন, ভারতীয় খেলোয়াড়েরা গেইলকে অভিনন্দন জানান। হালকা গার্ড অব অনারও হয়ে যায়! গেইল ব্যাটের হাতায় হেলমেট ঝুলিয়ে দর্শকদের অভিনন্দনের জবাব দিতে দিতে মাঠ ছাড়েন। ড্রেসিংরুম সতীর্থরা তাকে করতালিতে অভিনন্দন জানান। তখন ধারাভাষ্যকক্ষ থেকে প্রশ্ন ওঠে শেষ ওয়ানডেটি খেলে ফেললেন গেইল? সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে স্তুতি।

সেসব গুঞ্জনে পরে জল ঢেলে দিয়েছেন গেইল নিজেই। আলোচনা যখন তুঙ্গে, তখন ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ডের অফিসিয়াল টুইটারে পোস্ট করা এক ভিডিওতে মারকুটে ব্যাটসম্যান সাফ জানিয়ে দেন, আমি তো অবসরের ঘোষণা দেইনি। হাসিমুখে জানান, পরবর্তী ঘোষণা না দেয়া পর্যন্ত উইন্ডিজের হয়ে খেলা চালিয়ে যাবেন।

Bellow Post-Green View