চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

একুশে গ্রন্থমেলার প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে, নিরাপত্তায় নজর বেশি

অমর একুশে গ্রন্থমেলার প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে। গতবার ব্লগার অভিজিৎ হত্যাকাণ্ডের প্রেক্ষাপটে এবার মেলার নিরাপত্তা ব্যবস্থার দিকে বেশি মনোযোগ মেলার আয়োজক বাংলা একাডেমির। সম্মিলিতভাবে নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছেন একডেমির সচিব। 

৫ লাখ বর্গফুট এলাকা জুড়ে এবারের অমর একুশে গ্রন্থমেলা হবে বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণ এবং সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে। তাই কর্মব্যস্ত পুরো এলাকা। চলছে দিন-রাত কাজ। তবে সকল কাজই শেষ করার কথা ছিলো ২৭ জানুয়ারীর মধ্যে। এখন যারা কাজ করছেন তারা বললেন বই মেলা শুরুর আগেই তারা শেষ করবেন তাদের সকল কাজ।

গতবছর ২৬ ফেব্রুয়ারী মেলা থেকে বের হয়ে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের কাছে জঙ্গিদের চাপাতির আঘাতে নিহত হন মুক্তমনার ব্লগের প্রতিষ্ঠানা ও বিজ্ঞানমনস্ক লেখক অভিজিত রায়। গুরুতর আহত হন তার স্ত্রী বিজ্ঞানমনস্ক লেখক রাফিদা আহমেদ বন্যা। প্রশ্ন ওঠে মেলার নিরাপত্তা নিয়ে। এবার সেদিকেই বেশি মনোযোগ মেলা কর্তৃপক্ষের।  

Advertisement

বাংলা একাডেমির সচিব মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন বলেন, কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থার প্রস্তুতি নিয়েছে মেট্রোপলিটন পুলিশ। তারা ওয়াচ টাওয়ার করেছে এবং র‌্যাব থেকেও ওয়াচ টাওয়ার করা হয়েছে। এবং মেলার উভয় প্রান্তে পুলিশের ক্যাম্প ও র‌্যাবের ক্যাম্প তৈরি করা হবে। 

এবার বাংলা একাডেমিতে থাকছে ৩টি এবং সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে থাকছে ৪টি গেইট। যার মধ্যে একটি ৫০ ফুটের। মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন বলেন, আমরা গুচ্ছ আকারে এবারের মেলাটিকে সাজিয়েছি। যেন প্রতিটি স্টলে দুটি করে গেট থাকে। 

বই মেলায় বিভিন্ন কর্ণারের পাশাপাশি থাকছে শিশু সাহিত্যিক কর্ণার। আর থাকছে ৬’শ ৫১টি স্টল। প্রতিবারের মতো এবারো প্রতিদিন বিকেলে বইমেলা থেকে বই এর আলোচনা অনুষ্ঠান ‘আইএফআইসি-চ্যানেল আই বইমেলা সরাসরি’ সম্প্রচার করবে চ্যানেল আই। আর মেলার প্রতিদিনের ঘটনা ও প্রকাশনা নিয়ে বুলেটিন বের করবে পাক্ষিক আনন্দ আলো।