চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

একবছরের জন্য নিষিদ্ধ হলেন প্রসূন আজাদ

আগামী একবছরের জন্য মিডিয়ায় সবধরণের কাজ থেকে নিষিদ্ধ হলেন আলোচিত ও সমালোচিত অভিনেত্রী প্রসূন আজাদ।

ডিরেক্টরস গিল্ডের সাধারণ সম্পাদক এস এ হক অলিক এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

বিজ্ঞাপন

অলিক চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, প্রসূনের আচরণগত কিছু কারণেই ডিরেষ্টেরস গিল্ডের পক্ষ থেকে প্রসূনের বিরুদ্ধে এমন পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। আগামী একবছর প্রসূন কোনো নির্মাতা, প্রযোজকদের সঙ্গে কাজ করতে পারবেন না।

নির্মাতা ও ডিরেষ্টেরস গিল্ডের সাধারণ সম্পাদক এস এ হক অলিক
নির্মাতা ও ডিরেষ্টেরস গিল্ডের সাধারণ সম্পাদক এস এ হক অলিক

নির্মাতা এস এ হক অলিক আরও বলেন, নির্মাতা রোকেয়া প্রাচীর লিখিত বক্তব্যের আগেই প্রসূনকে আমি ব্যাক্তিগতভাবে বলেছিলাম ফেসবুকের ওই আপত্তিকর স্ট্যাটাস সরিয়ে নিতে, কিন্তু সে তা করেননি বরং আরো একটি আপত্তিকর স্ট্যাটাস পোস্ট করেছে। এরপর রোকেয়া প্রাচীর লিখিত বক্ত্যের পর প্রসূনের কাছ একটি লিখিত বক্তব্য চাওয়া হলেও প্রসূন কোনো লিখিত বক্তব্য দেয়নি। ফলে এই ধরনের পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হয়েছি।

অলিক মনে করেন, একটি সংগঠনকে অবমাননা, অশ্রদ্ধা ও গুরুত্বহীন ভাবার জন্য অনেক পরিচালক আমাকে যখন ফোন করে বলছিলেন, কেনো প্রসূনের বিরুদ্ধে কিছু করছি না। প্রসূনের এমন আচারণ কারো কাছে কাম্য নয়। কারণ টেলিভিশন মিডিয়ার আমরা যারা কাজ করি সবাই একটি পরিবার হয়ে কাজ করি। এখানে অনেক মান-অভিমানের ঘটনা ঘটতে পারে সেজন্যই কাউকে ব্যক্তিগতভাবে আক্রমণ করা খুবই দুঃখজনক।

নির্মাতা রোকেয়া প্রাচী
নির্মাতা রোকেয়া প্রাচী

গত ১৮ অক্টোবর শুটিংকে কেন্দ্র করে ফেসবুকে পাল্টাপাল্টি ফেসবুক স্ট্যাটাস ছোঁড়াছুঁড়ি করেন নির্মাতা রোকেয়া প্রাচী ও অভিনেত্রী ও লাক্স তারকা প্রসূন আজাদ।

প্রসূনের এমন আচরণে নির্মাতা রোকেয়া প্রাচী ডিরেক্টরস গিল্ড, টেলিভিশন প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ ও অভিনয়শিল্পী সংঘ নাটকের এই তিন সংগঠনের কাছে লিখিত অভিযোগ করেছিলেন।

Bellow Post-Green View