চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

উদ্বেগ জানিয়ে জাকারবার্গের কাছে সেলেনার বার্তা

ফেসবুক বলুন কিংবা ইনস্টাগ্রাম সব ধরনের সোশ্যাল হ্যান্ডেলেই বেশ একটিভ মার্কিন সংগীতশিল্পী সেলেনা গোমেজ। শুধু তাই নয় সেলেনার ইনস্টাগ্রামে যেমন রয়েছে প্রায় ১৯৩ মিলিয়ন ফলোয়ার, ঠিক তেমনিই তার ফেসবুকেও রয়েছে ৭৭ মিলিয়ন ফলোয়ারের বেশি!

কিন্তু তারপরেও সম্প্রতি এই গায়িকা ফেসবুকের অধীনে সমস্ত সামাজিক মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে বর্ণবাদ এবং ভুল তথ্য ছড়ানোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে আবেদন করেছেন স্বয়ং মার্ক জাকারবার্গের কাছে।

বিজ্ঞাপন

সেলেনা ফেসবুকের চিফ এক্সিকিউটিভ অফিসার মার্ক জাকারবার্গ এবং চিফ অপারেটিং অফিসার শেরিল স্যান্ডবার্গকে একটি ব্যক্তিগত বার্তা লিখেছেন, যেখানে তিনি তার উদ্বেগও প্রকাশ করেন।

বিজ্ঞাপন

বার্তায় সেলেনা লেখেন, ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রামে ভুল তথ্য, বর্ণবাদ এবং গোঁড়ামি ছড়িয়ে দেওয়ার বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়ার বিষয়টি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই সরব আন্দোলন চলছে। এসব বন্ধ করতে সহায়তা চেয়ে আপনাদের কাছে অনুরোধ। ঘৃণাত্মক বক্তৃতা, সহিংসতা এবং ভুল তথ্য ছড়িয়ে দেওয়ার দিকে মনোযোগী গ্রুপ এবং ব্যবহারকারীদের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করার ক্ষেত্রে দয়া করে ব্যবস্থা নিন। কেননা এটি আমাদের বর্তমান ও ভবিষ্যতকে অনেক কঠিন করে তুলছে।

এছাড়াও সেলেনা আরও যোগ করে বলেন, এটি নির্বাচনের বছর। ভোট প্রদান নিয়ে ভুল তথ্য ছড়িয়ে বিভ্রান্তি তৈরী কোনোভাবেই কাম্য নয়। ফ্যাক্ট-চেকিং এবং জবাবদিহিতা থাকা বাঞ্ছনীয়। আশা করছি, এ বিষয়ে আপনাদের সর্বোচ্চ সহযোগিতা পাবো।

গেল সপ্তাহে ভুল তথ্য ও বিদ্বেষমূলক বক্তব্য ব্যবস্থাপনা নীতির প্রতিবাদে নিজেদের ফেসবুক ও ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট বন্ধ রাখার ঘোষণা দেন লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও সহ বহু তারকা।

জুলাইয়ে ফেসবুকের বিরুদ্ধে বিজ্ঞাপন বয়কটের ক্যাম্পেইন শুরু করে ন্যাশনাল অ্যাসোসিয়েশন ফর দি অ্যাডভান্সমেন্ট অব দি কালারড পিপল(এনএএসিপি)। ভুয়া তথ্য, বর্ণবাদ ও উত্তেজনা ছড়ানোর মত কনটেন্টের বিরুদ্ধে ফেসবুক কোনো ব্যবস্থা না নেওয়ায় বড় বড় বিজ্ঞাপনদাতারা তাদের ডাকে সাড়া দিয়েছিল।