চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

উইন্ডিজকে খাদে ঠেলে ঘুরে দাঁড়াল প্রোটিয়ারা

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাগলাটে ব্যাটিংয়ে ফিফটির পরপরই গুটিয়ে যাওয়া ওয়েস্ট ইন্ডিজ টানা দ্বিতীয় হারের মুখে পড়েছে। তাদের ৮ উইকেটে হারিয়ে ঘুরে দাঁড়িয়েছে সাউথ আফ্রিকা। প্রথম ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে লড়াই করে পয়েন্ট হারায় প্রোটিয়ারা।

মঙ্গলবার দুবাইয়ে শুরুতে ব্যাট করে নির্ধারিত ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৪৩ রান জমায় উইন্ডিজ। জবাব দিতে নেমে ৮ উইকেট আর ১০ বল অক্ষত রেখে জয়ে নোঙর ফেলে প্রোটিয়ারা।

ক্যারিবীয়রা বিপদে পড়ে উদ্বোধনী জুটিতে। একদিকে যখন ঝড় তুলছিলেন এভিন লুইস, আরেক প্রান্তে টেস্ট-ব্যাটিং করতে থাকেন লেন্ডল সিমন্স। এতটাই জং ধরে যায় তার ব্যাটে যে, যখন রাবাদার বলে বোল্ড হয়ে ফিরলেন, ততক্ষণে অনেক ক্ষতি হয়ে গেছে উইন্ডিজের।

কোনো চার-ছয় তো মারতে পারেনইনি, সিমন্স ১৬ রান করতে বল খরচ করে ফেলেন ৩৫টি। আরেক উদ্বোধনী ব্যাটার লুইসের ৩ চার ও ৬ ছক্কায় ৩৫ বলে করা ৫৬ রানের ইনিংসটি তাই উজ্জ্বলতা হারায়।

বিজ্ঞাপন

লুইসের ইনিংসটি আরও নিঃসঙ্গ হয়ে পড়ে যখন পরের দিকে পুরান ১২, গেইল ১২ বলে ১২, অধিনায়ক পোলার্ড ২০ বলে ২৬, আন্দ্রে রাসেল ৫, হেটমায়ার ১ রানে ব্যর্থ হয়ে ফেরেন।

প্রিটোরিয়াস ৩ ওভারে ১৭ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন। ২৪ রানে ২ উইকেট মহারাজের। রাবাদা ও নর্টজের ঝুলিতে গেছে একটি করে উইকেট।

জবাব দিতে নেমে অধিনায়ক বাভুমা ২ রানে ফিরলেও তার ওপেনিং সঙ্গী রিজা হেনড্রিক্স ৪ চার এক ছয়ে ৩০ বলে ৩৯ রানে ভালো শুরু দিয়ে যান।

ফন ডার ডুসেন ও এইডেন মার্করাম অবিচ্ছিন্ন ৮৩ রানের জুটিতে পরে ম্যাচ শেষ করে আসেন। ডুসেন ৩ চারে ৫১ বলে অপরাজিত ৪৩ রানের ধীর ইনিংস খেলেন। মার্করাম ছিলেন উল্টো, ২ চারে পিঠে ৪ ছক্কায় ২৬ বলে আগ্রাসী ৫১ রানে অপরাজিত থাকেন।

বিজ্ঞাপন