চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

আমার অনেক টাকা নেই, কিন্তু ভালো কিছু ভক্ত আছে: ফারিয়া

প্রিয় তারকার সান্নিধ্য ও সমর্থন পেতে ভক্তরা অনেক কিছুই করে থাকেন। জন্মদিনে পোস্টার ছাপানো থেকে শুরু করে অতীতে অনেক ভক্তদের তাদের প্রিয় তারকার নামে শহরের গুরুত্বপূর্ণ স্থানে বিলবোর্ড তুলতেও দেখা গেছে। ভক্তদের এমন বিস্ময়কর কাণ্ডকীর্তি কয়েকবছর আগেও খুব বেশি পৌঁছাতো না তারকার কাছে।

বিজ্ঞাপন

কিন্তু এখন প্রেক্ষাপট ভিন্ন। ভক্তদের তার প্রিয় তারকার কাছে আসার সেতু তৈরি করেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক। ভক্তরা সেখানে যুক্ত থেকে নিয়মিত আপডেট পান তারকার। এমনকি লাখো ভক্ত প্রিয় তারকার নামে গ্রুপের মাধ্যমে যুক্ত থাকতে পারেন। অভিনেত্রী শবনম ফারিয়ার ভক্তদের শবনম ‘ফারিয়া ফ্যানস ক্লাব’ নামে একটি গ্রুপ রয়েছে। আর এই গ্রুপটিই সম্প্রতি জড়ো করেছে বাংলাদেশে বিভিন্ন অঞ্চলে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা ফারিয়ার ভক্তদের।

সেই গ্রুপটির কিছু সদস্য তাকে নিয়ে প্রথম ‘গেট টুগেদার’ করলো। রাজধানীর বনানীর একটি রেস্তোরাঁয় ভক্তদের এমন আয়োজনে উপস্থিত হন ‘দেবী’ খ্যাত এই অভিনেত্রী। ভক্তদের ফুলেল শুভেচ্ছা গ্রহণ করে, তাদের সাথে সেলফি তুলেন ফারিয়া। শুধু তাই নয়, সবশেষে তাদের সাথে রাতের খাবারও শেয়ার করেন তিনি। এতো ব্যস্ততার মাঝেও সময় দেয়ায় উচ্ছ্বসিত তার ভক্ত অনুরাগী সকলে।

এ বিষয়ে চ্যানেল আই অনলাইনকে ফারিয়া বলেন, ফ্যানস ক্লাবটির একবছর পূর্ণ হয়েছে কিছুদিন আগে। তখনই গেট টুগেদারের কথা ছিল। কিন্তু ঈদের নাটকের ব্যস্ততায় সম্ভব হয়নি। তাই সোমবার (২৪ জুন) করে ফেললাম। আমি অভিভূত। আমার প্রতিটি কাজ তারা দেখে। আমার ফ্যানস ক্লাবে প্রতিটি কাজের ভালো মন্দ দিক তারা আলোচনা করে। এ বছর মেরিল প্রথম আলো সম্মাননা পেয়েছিলাম। তখন ওরা ভীষণ খুশি হয়েছিল।

তিনি বলেন, চট্টগ্রাম, সন্দীপসহ দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে ওরা এসেছে। নিজেদের টাকা দিয়ে গেট টুগেদার আয়োজন করেছে। ওরা নিজেরাই উদ্যোগ নিয়েছে। ওখানে যাওয়ার পর আমি সারপ্রাইজড হয়েছি। আগেও বলেছি, এখনোও বলছি, আমার অনেক টাকা নেই, কিন্তু ভালো কিছু ফ্যান আছে।