চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

‘আমাদের প্রধানমন্ত্রী কাউকে ছাড় দিচ্ছেন না’

দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠার লক্ষে দুর্নীতি ও অনিয়মের বিরুদ্ধে নিয়মিত অভিযান চলবে  জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন। তিনি বলেছেন, নিয়ন্ত্রণে না আসা পর্যন্ত ক্যাসিনো, টেন্ডারবাজিসহ সব ধরনের দুর্নীতি ও অনিয়মের বিরুদ্ধে চলমান অভিযান অব্যাহত থাকবে। এসব বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী কাউকে ছাড় দিচ্ছে না বলেও জানান তিনি।

শনিবার দুপুরে রাজধানীর বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশনের (বিএফডিসি) হল রুমে আয়োজিত ছায়া সংসদ বিতর্ক প্রতিযোগিতার অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন।

বিজ্ঞাপন

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘এই অভিযান কন্টিনিউ (অব্যাহত) করতেই হবে। আমি শুদ্ধি অভিযান বলব না, আমি বলব দুর্নীতির বিরুদ্ধে, অনিয়মের বিরুদ্ধে অভিযান। দুর্নীতিবাজ দুর্নীতি আর দখলবাজরা দখলের চিন্তা যতদিন করবে; ততদিন এই অভিযান চলবে।’

‘আপনারা দেখছেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী কাউকে ছাড় দিচ্ছেন না। আমরা অবশ্যই টেন্ডারবাজ, দুর্নীতিবাজদের কন্ট্রোলে নিয়ে আসব। প্রধানমন্ত্রী গত মেয়াদে বলেছিলেন জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাস দূর করবে। জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাসকে তিনি দূর করে দিয়েছেন’,  বলেন আসাদুজ্জামান খাঁন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ক্যাসিনো ও টেন্ডারবাজি বড় বিষয় নয়, যেখানেই অনিয়ম ও দুর্নীতি চলবে সেখানেই অভিযান চলবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠার জন্য কতগুলো জিনিসের উপর জোর দিয়েছেন। তিনি জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদ দমন করেছেন। এই টার্মে এসে তিনি সুশাসন প্রতিষ্ঠা করতে চাচ্ছেন। সেই সুশাসন যার ভিত্তিতে বাংলাদেশ এগিয়ে যাবে। আমাদের মাঝে যে স্বপ্নের বাংলাদেশ রয়েছে সেটি বাস্তবায়নের লক্ষে প্রধানমন্ত্রী কাজ করছেন।

দুর্নীতি ও অনিয়মের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়ে যেতে হবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, এরজন্য সকলকে সহযোগিতা করতে হবে। আমাদের আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সকল পর্যায় ঢেলে সাজানো হচ্ছে। যাতে সুশান প্রতিষ্ঠার জন্য সাসটেইনেবল সিকিউরিটি প্রতিষ্ঠা করা যায়।

বিজ্ঞাপন

নতুন প্রজন্মের কাছে আহ্বান রেখে আসাদুজ্জামান খাঁন বলেন, ‘তারা যেন এই ভুল কাজটি না করে। তাহলে কিন্তু তারা হারিয়ে যাবে। আমরা চাই না, আমাদের নতুন প্রজন্ম হারিয়ে যাক।’

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, কোনও সেক্টরকে টার্গেট করে বা আলাদা করে দেখা হচ্ছে না। যেখানেই দুর্নীতি ও অনিয়ম হচ্ছে, সেখানেই অভিযান করা হচ্ছে। কোনও এলাকাকে আলাদা করে দেখা হচ্ছে না।

আবরার হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে তিনি বলেন, বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার হত্যার ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক। ঘটনার পর যারা দোষী ছিল তাদের ধরা হয়েছে। তারাও মেধাবী শিক্ষার্থী। কিন্তু তাদের মস্তিষ্ক এভাবে বিকৃত হবে এটা আমরা কখনও ভাবিনি। অতিদ্রুত আবরার হত্যার চার্জশিট দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। একটি নির্ভুল চার্জশীট তৈরির কাজ চলছে।

তিনি বলেন, যেখানেই অনিয়ম ও দুর্নীতি হচ্ছে, সেখানেই প্রধানমন্ত্রী সঠিক ব্যবস্থা নিচ্ছেন। গত ১০ বছর আগে এবং পরে প্রধানমন্ত্রী একই ভাবে দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠার লক্ষে কাজ করছেন।

সুশাসন প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে বর্তমান সরকার এগিয়ে যাচ্ছে -শীর্ষক বিষয়ের পক্ষে বিজিএমইএ বিশ্ববিদ্যালয় এবং বিপক্ষে ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থীরা প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেন। এতে পক্ষে থাকা বিজিএমইএ জয়ী হয়ছে।

“সুশাসন প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে বর্তমান সরকার এগিয়ে চলছে” বিষয়ের উপর এই ছায়া সংসদ বিতর্ক প্রতিযোগিতার আয়োজন করে ডিবেট ফর ডেমোক্রেসি।

Bellow Post-Green View