চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

আবারও নিজের দাম বাড়িয়েছেন অক্ষয়

২০২১ সালে নতুন কোনো সিনেমার জন্য শিডিউল ফাঁকা নেই অক্ষয়ের…

বর্তমান সময়ে পারিশ্রমিকের দিক থেকে বলিউডের যেকোন তারকার তুলনায় সব থেকে বেশি এগিয়ে অক্ষয় কুমার। শুধু তাই নয়, দিনকে দিন যেন সেই পারিশ্রমিকের অঙ্ক বেড়েই চলছে। যার প্রমাণ মিললো আবারো।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম বলিউড হাঙ্গামা বলছে, ২০২২ সালের সিনেমার জন্য রেকর্ড পরিমাণ পারিশ্রমিক ১৩৫ কোটি রুপি হাঁকিয়েছেন বলিউডের খিলাড়ি খ্যাত তারকা অক্ষয় কুমার! মূলত আগামি এক বছরের জন্য অক্ষয়ের কোনো শিডিউল না থাকায় তার এই অতিরিক্ত চাহিদা বলে জানা গেছে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

এ বিষয়ে বলিউড হাঙ্গামাএকটি সূত্রের বরাতে জানিয়েছে, ‘লকডাউনের গত কয়েক মাসে অক্ষয় কুমার ধীরে ধীরে তাঁর পারিশ্রমিক ৯৯ কোটি রুপি থেকে বাড়িয়ে ১০৮ কোটি রুপি করেছেন এবং অবশেষে তা ১১৭ কোটিতে স্থির হয়েছে। কিন্তু প্রত্যেক প্রযোজক তাঁদের সিনেমার নিশ্চিত ব্যবসার জন্য এখন অক্ষয় কুমারকে সিনেমায় রাখতে চাইছেন। সে জন্য অক্ষয়ও চাহিদার পরিপ্রেক্ষিতে প্রতিটি সিনেমার প্রস্তাব আসার সঙ্গে সঙ্গে পারিশ্রমিক বাড়াচ্ছেন। তারই পরিপ্রেক্ষিতে ২০২২ সালে মুক্তির জন্য অক্ষয় প্রতি সিনেমায় ১৩৫ কোটি রুপি পারিশ্রমিক হাঁকাচ্ছেন।’

এছাড়া কম ঝুঁকি ও অর্থ ফেরত পাওয়ার যুক্তি হিসেবে সূত্রটি বলিউড হাঙ্গামাকে আরো বলেছে, ‘অক্ষয় কুমারের বেশির ভাগ সিনেমার প্রযোজনা ব্যয় ৩৫ থেকে ৪৫ কোটি রুপির মধ্যে। আর এর সঙ্গে প্রকাশনা ও প্রচারণা ব্যয় যুক্ত ১৫ কোটি রুপি। সব মিলিয়ে ব্যয় ৫০ থেকে ৬০ কোটি রুপি। এর সঙ্গে তাঁর পারিশ্রমিক যুক্ত করলে সিনেমার মোট প্রযোজনা ব্যয় দাঁড়ায় ১৮৫ থেকে ১৯৫ কোটি রুপি। আগের সিনেমাগুলোর আয় পর্যবেক্ষণ করলে দেখা যায়, স্যাটেলাইট ও ডিজিটাল স্বত্ব থেকে তাঁর সিনেমা আয় করে প্রায় ৮০ থেকে ৯০ কোটি রুপি, গানের স্বত্ব থেকে আসে ১০ কোটি রুপির বেশি এবং প্রেক্ষাগৃহ থেকে আসে প্রায় ৯৫ থেকে ১০০ কোটি রুপি। সব মিলিয়ে ভারতের বক্স অফিসে মোট সংগ্রহ দাঁড়ায় ২১০ থেকে ২২০ কোটি রুপি। ফলে প্রযোজকদেরও তার পারিশ্রমিক বৃদ্ধির ব্যাপারে তেমন অভিযোগ থাকে না।’

কেননা তারকাখ্যাতি ও দর্শকের পূর্ণ আস্থার কারণে এটা অর্জন করা অক্ষয়ের কাছে বড় কিছু নয়। আশা করা যাচ্ছে ২০২১ সালেও অক্ষয়ের মতো সুপারস্টারের কাছে তা আরো সহজ হবে। কারণ আসছে বছরের জন্য এখনো তার হাতে রয়েছে ‘সূর্যবংশী’, ‘অতরঙ্গি রে’, ‘পৃথ্বীরাজ’, ‘রাম সেতু’, ‘মিশন লায়ন’, ‘রক্ষা বাঁধন’সহ বেশ কিছু সিনেমা।

বিজ্ঞাপন